সরকার কি ২০০০ টাকার নোট বাতিল করতে চায়? বিরোধীদের প্রশ্নে নিরুত্তর অর্থমন্ত্রী

0
403

নয়াদিল্লি : আবার কি নোটবন্দি? এই প্রশ্ন ঘোরাফেরা করছে গোটা রাজনৈতিক মহলেই।

সরকার ২০০০ টাকার নোট বাতিল করার এবং এক  হাজার টাকার মুদ্রা প্রবর্তন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কিনা, এ বিষয়ে বুধবার রাজ্যসভায় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলির কাছে স্পষ্ট উত্তর জানতে চায় বিরোধীদলগুলি। তবে এ দিন জেটলি সভায়  উপস্থিত থাকলেও, বিরোধীদের এই প্রশ্নের উত্তর দেননি।

জিরো আওয়ারে এই বিষয়টি উত্থাপন করেন সমাজবাদী পার্টির নরেশ অগরওয়াল । তিনি বলেন, “সরকার ২০০০ টাকার নোট বাতল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। সেই অনুযায়ী ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ককে ২ হাজার টাকার নোট না ছাপার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। সংসদ অধিবেশন চলাকালীন কোনো নীতিগত সিদ্ধান্ত নেওয়া হলে নিয়ম অনুযায়ী সেটা সভায় ঘোষণা করা হয়”।

তিনি বলেন, এ পর্যন্ত আরবিআই ৩২০০০০ কোটি ২০০০ টাকার নোট ছাপিয়েছে। এখন ছাপা বন্ধ করা হয়েছে। ইতিমধ্যে এক দফা নোট বাতিল করা হয়েছে। এ বার পরের দফায় নোট বাতিলের পরিকল্পনা চলছে। অর্থমন্ত্রীর উচিত এই ব্যাপারে মুখ খোলা।

এর প্রেক্ষিতে ডেপুটি চেয়ারম্যান পি জে কুরিয়েন বলেন, এটা আরবিআই-এর কাজ।

কুরিয়েনের এই মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে অগরওয়াল বলেন, এর আগের নোট বাতিলের সিদ্ধান্ত ছিল সরকারের, আরবিআই-এর নয়। আরবিআই বোর্ড নোট বাতিলের বিরোধিতা করেছিল। এর আগে প্রথম দফার নোট বাতিলের সিদ্ধান্ত ছিল সরকারের, পরের দফার সিদ্ধান্তও সরকারেরই।

বিরোধীদল নেতা গোলাম নবি আজাদও সরকারের কাছ থেকে এ বিষয়ে স্পষ্ট ভাষায় জানতে চেয়েছেন।

বিরোধীদল নেতা বলেন, প্রতিদিনই ১০০০, ১০০, ২০০ টাকার মুদ্রার কথা শুনছি। আসল ঘটনাটা কী? সংবাদমাধ্যম যা লিখছে সেটাই কি মেনে নেব? অর্থমন্ত্রীকে বলতে হবে আসল সত্যিটা কী। তিনি আরও বলেন, ১০০০ টাকার কয়েন নিয়ে ঘোরার জন্য একটা ব্যাগ কিনতে হবে সবাইকে। মহিলাদের ব্যাগ থাকে। কিন্তু এ বার সবাইকেই তেমন ব্যাগ ব্যবহার করতে হবে।

ডিএমকের পক্ষ থেকে তিরুচি শিবাও এই বিষয়ে সরকারের কাছ থেকে স্পষ্ট কথা জানতে চান।

জেডিইউ-র শরদ যাদব বলেন, গুজবটা জোরালো হয়ে উঠছে। সরকারের উচিত স্পষ্ট ভাবে সবটা জানানো। এই সব থামানো উচিত। নয়তো জনগণ ২০০০-এর নোট ফেরত দিতে শুরু করবেন।

এত কথার পরেও মৌনী থাকেন অর্থমন্ত্রী।

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here