রাজ্যে অক্সিজেনের ঘাটতি নেই, গুজব ছড়ালে বাজেয়াপ্ত হতে পারে সম্পত্তি, হুঁশিয়ারি যোগী আদিত্যনাথের

0
yogi adityanath ram mandir

লখনউ: রাজ্যের কোনো সরকারি অথবা বেসরকারি হাসপাতালে অক্সিজেনের ঘাটতি নেই। ফলে এ ধরনের ‘গুজব’ ছড়ালে আইনানুগ ব্যবস্থার পাশাপাশি সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার মতো কড়া পদক্ষেপ নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ।

করোনা সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউয়ের মধ্যেই বিভিন্ন হাসপাতাল এবং রোগীর আত্মীয়-স্বজনরা পর্যাপ্ত অক্সিজেনের অভাবের কথা জানাচ্ছেন। দ্য হিন্দু-র প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এর মধ্যেই মুখ্যমন্ত্রী যোগী সোশ্যাল মিডিয়ায় এ ধরনের ‘গুজব’ ছড়িয়ে ‘পরিবেশ নষ্ট’ করার চেষ্টা করলে জাতীয় সুরক্ষা আইনের আওতায় সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করার মতো চরম পদক্ষেপ নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন প্রশাসনিক কর্তাদের।

অক্সিজেনের অভাব নেই

উত্তরপ্রদেশে অক্সিজেনের কোনো অভাব নেই বলে দাবি করেছেন যোগী আদিত্যনাথ। বলেছেন, এ বিষয়ে কেউ গুজব ছড়িয়ে ‘পরিবেশ নষ্টের’ চেষ্টা করলে জাতীয় সুরক্ষা আইনে পদক্ষেপ নেওয়ার পাশাপাশি সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হবে।

ঘটনায় প্রকাশ, নির্বাচিত কিছু সাংবাদিকের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সে কথা বলেন যোগী। তিনি জোর দিয়ে বলেন, বেসরকারি বা সরকার পরিচালিত কোনো কোভিড -১৯ হাসপাতালে অক্সিজেন সরবরাহের অভাব নেই, তবে আসল সমস্যা হল কালোবাজারি এবং বেআইনি মজুত। যা শক্ত হাতে মোকাবিলা করা হবে।

আদিত্যনাথ বলেন, “আক্রান্ত হলেই রোগীর অক্সিজেনের প্রয়োজন নেই, মিডিয়া থেকে এ বিষয়ে সচেতনতা বাড়ানোর ক্ষেত্রে সহযোগিতা আশা করছি”।

তিনি সাংবাদিকদের আরও বলেন, একটি বেসরকারি হাসপাতাল দু’দিন আগে অক্সিজেন ঘাটতির কথা জানিয়েছিল। পরে তদন্ত করে দেখা যায় হাসপাতালটিতে যথেষ্ট অক্সিজেন রয়েছে।

জাতীয় সুরক্ষা আইন অধীনে ব্যবস্থা

এর আগেই আধিকারিকদের সঙ্গে একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক করেন যোগী। আধিকারিকদের উদ্দেশে তিনি নির্দেশ দেন, ওষুধের কালোবাজারি করলে অথবা গুজব ছড়িয়ে পরিবেশ নষ্ট করার চেষ্টা জাতীয় সুরক্ষা আইন অধীনে ব্যবস্থা নিতে হবে।

সরকারের কাছ থেকে পরামর্শ পাওয়ার পর রাজ্য পুলিশ ইতিমধ্যেই ওষুধ ও অক্সিজেন সিলিন্ডার কালোবাজারি এবং বেআইনি মজুতের অভিযোগে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে অভিযান শুরু করেছে।

এডিজি (আইন শৃঙ্খলা) প্রশান্ত কুমার জানিয়েছেন, “কিছু অসাধু ব্যক্তি সোশ্যাল মিডিয়ায় গুজব ছড়াচ্ছে। বার বার একই জাতীয় মেসেজ পোস্ট করছে। দেখে মনে হচ্ছে সরকারের ভাবমূর্তি নষ্ট করার চেষ্টা চলছে”।

তিনি বলেন, এ ধরনের কাজের সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের ও কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে সব জেলাকে।

উত্তরপ্রদেশ পুলিশ জানিয়েছে, তারা এখনও পর্যন্ত ৪২ জনকে গ্রেফতার করেছে এবং ২৩৯টি অক্সিজেন সিলিন্ডার এবং ৬৮৮টি রেমডেসিভিরের শিশি উদ্ধার করেছে।

সূত্র: দ্য হিন্দু

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন