একের পর এক একতরফা সিদ্ধান্ত পাকিস্তানের, এ বার বন্ধ হল ‘দোস্তি’ বাস

ওয়েবডেস্ক: জম্মু-কাশ্মীরে ‘ধাক্কা’ খাওয়ার পর একের পর এক একতরফা সিদ্ধান্ত নিয়েই চলেছে পাকিস্তান। সমঝোতা ও থর এক্সপ্রেস বন্ধ করার পর পাকিস্তানের কোপে এ বার বন্ধ হয়ে গেল দুই দেশের মধ্যে চলাচলকারী বাস পরিষেবাও।

প্রথমে বৃহস্পতিবার সমঝোতা এক্সপ্রেস বন্ধ করার কথা ঘোষণা করে পাকিস্তান। এর পর শুক্রবার বন্ধ করে দেওয়া হয় দুই দেশের মধ্যে চলাচলকারী থর এক্সপ্রেসও। শুক্রবার রাতে দিল্লি-লাহোর বাস বন্ধ করার কথা জানিয়েছেন পাকিস্তানের যোগাযোগ ও ডাক বিভাগের দায়িত্বে থাকা মন্ত্রী মুরাদ শহিদ।

আরও পড়ুন জম্মু ও কাশ্মীরে কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল পুনর্গঠন নিয়ে ভারতের পাশে দাঁড়াল পি-৫ গোষ্ঠীভুক্ত দেশ রাশিয়া

কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা তুলে নেওয়ার পরই ভারতের সঙ্গে সব সম্পর্ক বিচ্ছিন্ন করার কাজে নেমেছে পাকিস্তান। প্রথমে শুরু হয়েছিল ৫টি পদক্ষেপের মধ্যে দিয়ে। পাকিস্তানে ভারতীয় রাষ্ট্রদূতকে ভারতে ফিরিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় তারা। সেই সঙ্গে দুই দেশের মধ্যে সীমান্তবাণিজ্যও বন্ধ করে দেওয়ার ঘোষণা করে। এর পর দুই দেশের মধ্যে যোগাযোগকারী একের পর এক ট্রেন এবং বাসও বন্ধ করে দেওয়ার ঘোষণা করল তারা।

‘সদা-ই-সরহদ’ নামের বাস পরিষেবা ১৯৯৯ সালের ১৯ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হয়। তত্‍কালীন প্রধানমন্ত্রী অটলবিহারী বাজপেয়ী নিজে প্রথম বাসে চড়ে লাহোরের বৈঠকে যোগ দিতে যান। ওয়াঘায় তাঁকে স্বাগত জানান তত্‍কালীন পাক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ। ২০০১-এ সংসদ হামলার পরে এই বাস পরিষেবা বন্ধ হয়ে গেলেও ২০০৩ সাল থেকে ফের শুরু হয়।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.