মোদীর রসিকতা! অভিজিতকে ‘ফাঁসাতে’ ফাঁদ তৈরি করছে মিডিয়া!

0
Abhijit Banerjee

ওয়েবডেস্ক: মঙ্গলবার পূর্বনির্ধারিত সূচি মেনেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন অর্থনীতিতে নোবেলজয়ী অভিজিত বন্দ্যোপাধ্যায়। এ দিন প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনে সাক্ষাৎ সেরে একটি সাংবাদিক বৈঠকেও অংশ নেন অভিজিত। বলেন, “প্রধানমন্ত্রী তাঁকে রসিকতা করে বলেন, তাঁর মুখ থেকে মোদী-বিরোধী মন্তব্য শুনতে ফাঁদ তৈরি করছে সংবাদ মাধ্যম”।

সাংবাদিক বৈঠকে অভিজিত বলেন, ”আমার কাছ থেকে মোদী-বিরোধী বক্তব্য শুনতে ফাঁদ তৈরি করছে সংবাদমাধ্যম। এটা নিয়ে রসিকতা করেছেন প্রধানমন্ত্রী। উনি টিভি দেখেন। আপনাদেরও দেখছেন, বন্ধুরা। উনি জানেন, আপনারা কী করতে চাইছেন”।

এ দিন তিনি বলেন, ভারতের পক্ষে একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে একটি আমলাতন্ত্র তৈরি করা, যা জনগণের মতামতকে বিবেচনার সর্বাগ্রে রাখবে।

মোদীর সঙ্গে তাঁর সাক্ষাৎকে ‘একটি অনন্য অভিজ্ঞতা’ হিসাবে অভিহিত করে অভিজিৎ বলেন, প্রধানমন্ত্রী প্রশাসন ও আমলাতন্ত্রের বিষয়ে তাঁর সঙ্গে আলোচনা করেন। প্রধানমন্ত্রী য়ে আমলাতন্ত্রের সংস্কারে পদক্ষেপ নিচ্ছেন, সে কথাও তিনি এ দিনের আলোচনায় জানিয়েছেন।

অভিজিতের কথায়, “তিনি (মোদী) খুব সুন্দরভাবে ব্যাখ্যা করেন কী ভাবে তিনি আমলাতন্ত্রকে সংস্কারের চেষ্টা করছেন, যাতে জনগণের দৃষ্টিভঙ্গি বিবেচনায় অগ্রাধিকার পাবে এবং বাস্তবিক ভাবে তাদের চাহিদাগুলির দিকে আরও বেশি করে নজর দেওয়া যাবে”।

অভিজিত বলেন, “প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে এই বৈঠক করা আমার পক্ষে একটি বিশেষ সুযোগ ছিল। প্রধানমন্ত্রী আমাকে যথেষ্ট সময় দিতে এবং ভারত সম্পর্কে তাঁর চিন্তাভাবনা সম্পর্কে অনেক কথা বলতে পেরেছিলেন, যা বেশ অনন্য ছিল”।

প্রসঙ্গত, সাক্ষাৎপর্ব শেষে টুইটারে মোদী লিখেছেন, “নোবেলজয়ী অভিজিতের সঙ্গে দুর্দান্ত একটা বৈঠক হয়েছে। সাধারণ মানুষের ক্ষমতায়ন নিয়ে তাঁর গভীর চিন্তার ছাপ স্পষ্ট। আমরা একাধিক বিষয়ের উপর বেশ কার্যকরী কিছু আলোচনা করেছি। ভারত তাঁর সাফল্যে গর্বিত”।

অন্য দিকে নোবেলপ্রাপ্তির ঘোষণার পর থেকেই ভারতের বিজেপি নেতৃত্বাধীন কেন্দ্রীয় সরকারের অর্থনৈতিক দৃষ্টিভঙ্গির প্রবল সমালোচনা শুরু করেছেন অভিজিত। বর্তমান সরকার যে ধরনের অর্থনৈতিক পদক্ষেপগুলি অতিসাম্প্রতিক কালে গ্রহণ করেছে, সে সব নিয়েই সমালোচনায় সরব হন অভিজিত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here