ডাকঘর থেকে গঙ্গাজল বিকোচ্ছে বোতলে, দাম ১৫ থেকে ৩৫ টাকা

0

খবর অনলাইন: রবিবার সাত সকালে জিপিও-র সামনে দীর্ঘ লাইন। কিন্তু নিমেষেই নিঃশেষ সেই মহার্ঘ বস্তুটি। একই অবস্থা সোমবার শিলিগুড়ি হেড পোস্টাপিসে। মুহূর্তে বিক্রি হয়ে গেল সেই জিনিস। যাঁরা পেলেন না, তার রাগে গজরাতে গজরাতে চলে গেলেন। কারণ, কবে আবার এই বস্তুটি পাওয়া যাবে তার কোনও সদুত্তর মিলছে না। একই সমস্যা মেদিনীপুরেও। চাহিদার তুলনায় সরবরাহ মাত্র ১০ শতাংশ।

নিশ্চয়ই ভাবছেন, কী এমন মহার্ঘ বস্তু এটি, যে মুহূর্তে শেষ হয়ে যাচ্ছে। হ্যাঁ, সত্যিই মহার্ঘ এটি – পবিত্র গঙ্গাজল। ‘পবিত্র’ অর্থে নির্মল গঙ্গাজল, যা এই বঙ্গে পাওয়া রীতিমতো দুষ্কর। কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গের বিস্তীর্ণ এলাকা গঙ্গা-তীরবর্তী হওয়া সত্ত্বেও এখানকার গঙ্গাজল দূষিত। নিরুপায় হয়ে অনেকেই পূজায় ব্যবহার করেন বটে, কিন্তু মন খুঁতখুঁত করে। তাই পরিষ্কার গঙ্গাজলের চাহিদা মেটাতে ময়দানে নেমেছে ডাক ও তার বিভাগ, ভারত সরকার।

সরকারি উদ্যোগে গঙ্গাজল বিক্রির ব্যবস্থা হওয়ায় ক্রেতাসাধারণ যারপরনাই খুশি। কিন্তু চাহিদার তুলনায় সরবরাহ খুব কম। পশ্চিমবঙ্গে গঙ্গাজল বিক্রির ব্যাপারটি দেখভাল করছেন ডাক বিভাগের অ্যাসিস্ট্যান্ট ডিরেক্টর (বিজনেস ডেভেলপমেন্ট) স্বপন গড়াই। স্বপনবাবু জানান, “এখনও পর্যন্ত পশ্চিমবঙ্গে গঙ্গাজলের সরবরাহ খুব কম। প্রথম দফায় আমরা ৫০০ মিলিমিটারের ২৮০টি বোতল আর ২০০ মিলিমিটারের ২৪৫টি বোতল পেয়েছিলাম।” প্রথম চালানের এই নামমাত্র গঙ্গাজল সিন্ধুতে বিন্দুর মতো। দ্রুত নিঃশেষ হয়ে গিয়েছে।

রাজ্যে ৪৬টি হেড পোস্টাপিস আছে। এর মধ্যে পাত্র পাঁচটি থেকে গঙ্গাজলের প্রথম চালানটি বিক্রির বন্দোবস্ত হয় – কলকাতার জিপিও, হাওড়া, মেদিনীপুর, তমলুক ও শিলিগুড়ি। স্বপনবাবু জানান, একবার সরবরাহ ব্যবস্থা পাকাপোক্ত হয়ে গেলে রাজ্যের সব ক’টি হেড পোস্টাপিস ও সাব পোস্টাপিস থেকে গঙ্গাজল বিক্রি করা হবে।

দু’ জায়গার গঙ্গাজল বোতলে ভরার ব্যবস্থা হয়েছে – হৃষীকেশ আর গঙ্গোত্রী। হৃষীকেশের জল দামে একটু সস্তা, ২০০ মিলিমিটার ১৫ টাকা আর ৫০০ মিলিমিটার ২২ টাকা। গঙ্গোত্রীর জলের দাম ২৫ আর ৩৫ টাকা। ডাক ও তার বিভাগের সূত্রে জানা গেল, অনলাইনে গঙ্গাজল বিক্রিরও ব্যবস্থা করা হয়েছে। তার জন্য সুদৃশ্য বাক্সেরও ব্যবস্থা হয়েছে। অনলাইনে কিনতে হলে স্পিড পোস্টে যা চার্জ লাগে তাই দিতে হবে – ১৭ টাকা থেকে ৪০ টাকা পর্যন্ত, দূরত্ব অনুযায়ী।

ছবি: সৌজন্যে দ্য টাইমস অফ ইন্ডিয়া

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন