কুম্ভে পুণ্যস্নানের পরেই রাজনীতির ইনিংস শুরু করবেন প্রিয়ঙ্কা

কুম্ভস্নানের দিন নিয়ে অবশ্য এখনও অনিশ্চয়তা আছে।

0
priyanka gandhi kumbha mela

ওয়েবডেস্ক: কংগ্রেসে যোগ দেওয়ার আগে কুম্ভমেলায় পুণ্যস্নান করবেন প্রিয়ঙ্কা গান্ধী। আগামী ৪ ফেব্রুয়ারি মৌনী অমাবস্যার দিন প্রয়াগে সংগমের জলে ডুব দেওয়ার পর নিজের দায়িত্বভার বুঝে নেবেন তিনি। ওই দিনই পুণ্যস্নানের পর লখনউয়ে যৌথ সাংবাদিক সম্মেলন করার কথা রাহুল এবং প্রিয়ঙ্কা গান্ধীর।

কুম্ভমেলায় ৪ ফেব্রুয়ারি দিনটি খুবই পবিত্র। এক দিকে যেমন মৌনী অমাবস্যা, তেমনই অন্য দিকে মেলার দ্বিতীয় শাহি স্নানের দিনও। প্রিয়ঙ্কার সঙ্গে রাহুলেরও পুণ্যস্নান করার কথা। ২০০১ সালে কুম্ভমেলায় পুণ্যস্নান করেছিলেন সনিয়া গান্ধী।

আরও পড়ুন বিজেপির বুনো ওল আর কংগ্রেসের বাঘা তেঁতুল: লংকাদহনে প্রিয়ংকা

কুম্ভস্নানের দিন নিয়ে অবশ্য এখনও অনিশ্চয়তা আছে। এই দিন কোনো কারণে পুণ্যস্নান সম্ভব না হলে ১০ ফেব্রুয়ারি বসন্ত পঞ্চমীর দিন কুম্ভে ডুব দেবেন রাহুল-প্রিয়ঙ্কা। যা একই সঙ্গে তৃতীয় শাহি স্নানের দিন। প্রিয়ঙ্কা কংগ্রেসের দায়িত্ব নেওয়ার দিনের সঙ্গে কুম্ভস্নান জড়িয়ে দেওয়ায় অনেকের মত, বিজেপিকে সামলাতে নরম হিন্দুত্বের রাস্তায় হাঁটছে কংগ্রেস। রাহুলের কৈলাস-মানসসরোবর তীর্থযাত্রার সময়ও রাজনৈতিক মহলে উঠেছিল একই প্রশ্ন।

আরও পড়ুন উত্তর প্রদেশের চাপ কাটাতে সেই রাম মন্দির তাসই খেললেন যোগী আদিত্যনাথ

কুম্ভস্নান সেরে লখনউতে একটি যৌথ সাংবাদিক সম্মেলন করবেন রাহুল এবং প্রিয়ঙ্কা। এমনটাই খবর পাওয়া যাচ্ছে সংবাদ সংস্থা সূত্রে। শোনা যাচ্ছে, সেখানেই আনুষ্ঠানিক ভাবে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দলের দায়িত্ব বুঝে নেবেন প্রিয়ঙ্কা। পূর্ব উত্তরপ্রদেশ, যা বিজেপির দুর্গ হিসেবেই পরিচিত, সেখানেই কংগ্রেসের হয়ে সেনাপতির দায়িত্ব সামলাবেন প্রিয়ঙ্কা।

প্রিয়ঙ্কার কংগ্রেসের যোগদানের পর বিজেপি শিবিরে যে কিছুটা চাপ তৈরি হয়েছে, সেটা তাদের নেতাদের মন্তব্য থেকেই ফুটে উঠছে। ভোট ব্যাঙ্ক বাড়ানোর জন্য ফের রাম মন্দির ইস্যুতেই ফিরে যাচ্ছে তারা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here