হাজিক কাজি। ছবি: ফ্লিক্র

ওয়েবডেস্ক: একে বিস্ময় বালক ছাড়া আর কী-ই বা বলা যায়! যখন পড়াশোনা করে খেলেধুলে বেড়ানোর সময়, তখনই সমুদ্রিক দূষণ কী ভাবে দূর করা যায়, সেই চিন্তা করতে বসল বারো বছরের বালক। সেই চিন্তাভাবনা ফলপ্রসূও হল। বালকটি আবিষ্কার করে ফেলেছে একটি বিশেষ ধরনের জাহাজ, যা দিয়ে পরিষ্কার হবে দূষিত সমুদ্র।

এই কাণ্ড ঘটিয়ে ফেলেছে পুনের বালক হাজিক কাজি। তার আবিষ্কার করা জাহাজের নাম দেওয়া হয়েছে ‘এর্ভিস’। এই বিশেষ জাহাজগুলিতে রেকাবির মতো একটা জিনিস লাগানো থাকবে। এই জিনিসটা জলের ওপরে ভাসমান সব বর্জ্য পদার্থকে নিজের কাছে টেনে নেবে। এর ফলে পরিষ্কার হবে জল। পাশাপাশি এই রেকাবির ফলেই জাহাজ থেকে নির্গত বর্জ্য পদার্থও সমুদ্রের জলে মিশবে না।

বাড়ির সিঙ্কে হাত ধুতে গিয়ে এই বুদ্ধিটা তার মাথায় আসে বলে জানিয়েছে কাজি। যে পদ্ধতি দিয়ে সিঙ্কের মধ্যে দিয়ে জল যায়, একই পদ্ধতি কাজে লাগানো হবে এখানে।

আরও পড়ুন এসে গেল পান-গুটখার পিকের দাগ মুছতে নতুন পরিবেশ-বান্ধব উপায়!

এর পরে কয়েকজন বিজ্ঞানী এবং ৩ডি ডিজাইনারের সঙ্গে কথা বলে ‘এর্ভিস’কে আরও পোক্ত রূপ দিয়েছে কাজি।

সমুদ্রে ভাসমান বর্জ্য পদার্থকে ঘূর্ণির মাধ্যমে নিজের দিকে আকৃষ্ট করে নেবে এই রেকাবি। তার পর টিউবের মধ্যে দিয়ে জাহাজের বিভিন্ন চেম্বারে সেই নোংরা পদার্থ চলে যাবে। বড়ো, মাঝারি, ছোটো এবং ক্ষুদ্র চেম্বার থাকবে এই জাহাজে।

সব কিছু উপেক্ষা করার ফলে পৃথিবীর এই দশা হয়েছে বলে মনে করে কাজি। তার কথায়, “আমরা সবাই পৃথিবীকে আরও খারাপ দিকে নিয়ে যাচ্ছি। আমরা যদি পরিবেশের প্রতি আর একটু সচেতন হই, তা হলে এই পৃথিবী অত্যন্ত সুন্দর হয়ে উঠবে।”

কাজি আরও বলে, “এই পৃথিবীতে দু’ ধরনের মানুষ আছে—এক জন যে সমস্যা তৈরি করে আর অন্য জন যে সমস্যার সমাধান করে।”

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here