police

ওয়েবডেস্ক: উপরওয়ালা যব দেতা হ্যায় ছপ্পর ফাড়কে দেতা হ্যায়। এক টাকা-দু’টাকা নয়, এক লটারির টিকিটেই এক্কে বারে দু’কোটি টাকার মালিক হয়ে গেলেন পঞ্জাব পুলিশের এক জন কনস্টেবল। ২৯ বছরের অশোক কুমার, হোসিয়ারপুর পুলিশ স্টেশনে পোস্টিং তাঁর। জীবনে অনেকবার ভেবেছিলেন। কিন্তু কেনেননি কখনও। অবশেষে গত বছর লহরি বাম্পার লটারির টিকিট কেনেন তিনি। আর ফল বেরোতেই কোটিপতি।

২০১০ সালে স্নাতক পাস করার পর থেকেই এই কাজে নিযুক্ত হয়েছেন তিনি। যাইহোক, লটারিতে পুরস্কার জেতার খবর তাঁকে প্রথম দেন লটারি দোকানের মালিক, গত ১৬ জানুয়ারি। তখনও আনুষ্ঠানিক ভাবে সরকারের পক্ষ থেকে খবর প্রকাশ হয়নি। এটি পঞ্জাব সরকারের লটারি বাম্পার। সরকারি গেজেটে শুক্রবার খেলার ফল ছাপা হয়।

আরও পড়ুন – জয়েন্ট এন্ট্রাস মেন দ্বিতীয় পরীক্ষা, রেজিস্ট্রেশন শুরু ফেব্রুয়ারিতেই, জানুন বিশদে

সংবাদমাধ্যমকে আশোক জানিয়েছেন, তিনি এই পুরস্কার জেতার কথা এখনও বিশ্বাস করতে পারছেন না। এটি এক জন মধ্যবিত্ত পরিবারের মানুষের কাছে একটি বিশাল পরিমাণ অর্থ।

police

তিনি বলেন, বহুবার ভেবেছেন লটারি টিকিট কেনার কথা। কিন্তু গত বছর দেওয়ালির আগে পর্যন্ত কখনওই কেনেননি। ২০১৮ সালের দীপাবলির সময় তিনি প্রথমবার টিকিট কিনেছিলেন। কারণ লটারিওয়ালা নিজে থানায় এসে ২০০ টাকা দিয়ে দীপাবলি বাম্পার কেনার জন্য রাজি করিয়েছিলেন।

আশোক বলেছেন, এই টাকা তিনি ব্যাঙ্কে রেখে দেবেন আর যে কাজ করছেন তা মন দিয়ে, পরিশ্রম করে করে যাবেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here