বন্যাদুর্গত কেরলের পাশে রাহুল, চিঠি রিজার্ভ ব্যাঙ্কের গভর্নরকে

0
rahul gandhi
ফাইল ছবি

নয়াদিল্লি: বন্যা কবলিত কেরলের কৃষকদের পাশে দাঁড়িয়ে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া (আরবিআই)-এর গভর্নর শক্তিকান্ত দাসকে চিঠি লিখলেন কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী। তিনি গভর্নরকে লেখা চিঠিতে আবেদন জানিয়েছেন, কৃষিঋণের টাকা পরিশোধের সময়সীমা আগামী ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাড়ানো হোক।

সরকারি তথ্যানুযায়ী, এখনও পর্যন্ত কেরলে বন্যার কারণে মৃতের সংখ্যা ৯৫। গত ৮ আগস্ট থেকে রাজ্যের ১,১১৮ টি অস্থায়ী ত্রাণশিবিরে স্থানান্তরিত করা হয়েছে ১.৮৯ লক্ষ গৃহহারা মানুষকে। টানা কয়েক দিনের ভারী বর্ষণে তাঁদের ঘরবাড়ি অধিকাংশ ক্ষেত্রেই চলে গিয়েছে জলের তলায়। কেরলের ওয়েনাড়ের সাংসদ রাহুল গত সোমবার বন্যা কবলিত বেশ কয়েকটি এলাকায় গত সোমবার যান। সেখানে গিয়ে পরিস্থিতি নিজের চোখে দেখার পরই কৃষিঋণ পরিশোধে সময়সীমা বাড়ানোর আর্জি জানান।

এক শতাব্দীরও বেশি সময় পরে সব থেকে ভয়াবহ বন্যার মুখোমুখি হয়ে চলেছে কেরল এবং এই বন্যায় চাষবাসের ব্যাপক ক্ষতি হওয়ায় কৃষকরা কৃষিঋণ পরিশোধে এ মুহূর্তে অপারগ। একই সঙ্গে বন্যার কবলে পড়ে অন্যান্য উৎপাদনশীল সম্পদেরও ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছেন তাঁরা।

একই সঙ্গে ঋণের টাকা পরিশোধ করতে না পেরে কেরলে আত্মঘাতী কৃষকের সংখ্যাও নেহাত কম নয়। সমস্ত দিক বিবেচনা করেই তিনি আরবিআইয়ের কাছে আর্জি জানান, কৃষিঋণ পরিশোধের সময়সীমা যেন বাড়িয়ে আগামী ৩১ ডিসেম্বর করা হয়। রাজ্যস্তরের রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কগুলি এই আর্জি ফিরিয়ে দেওয়ার পরই রাহুল দ্বারস্থ হয়েছেন কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কের।

উল্লেখ্য, সরকারি পরিসংখ্যান অনুযায়ী, কেরলের বন্যায় এখনও পর্যন্ত ১,০৫৭টি বাড়ি সম্পূর্ণ ভাবে ভেঙে গিয়েছে। ১১,১৫৯টি বাড়ি আংশিক ভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here