indian railways

ওয়েবডেস্ক: যা দেখা যাচ্ছে, ভারতীয় রেল তাদের ভুল বুঝতে পেরেছে! অন্তত রেলমন্ত্রী পীযূষ গয়াল তো সে কথাই স্বীকার করে নিয়েছেন বক্তব্যে।

জানা গিয়েছে, রেলের গ্রুপ ডি পরীক্ষায় বসার জন্য আইটিআই বা ইন্ডাস্ট্রিয়াল ট্রেনিং ইনস্টিটিউট বা সমগোত্রের কোনো প্রতিষ্ঠানের যে ট্রেনিং এবং শংসাপত্রের প্রয়োজন ছিল যোগ্যতা হিসাবে- সেই শর্তটি এ বার খারিজ করে নিল ভারতীয় রেল। গত বছরেই এই শর্তটি আরোপিত হয় পরীক্ষার্থীদের যোগ্যতার মান হিসাবে। এখনও পর্যন্ত অনেকেই সে কথা যদিও জানেন না। কেন না, ভারতীয় রেল খুব স্পষ্ট ভাবে এই শর্তটির উল্লেখ ইতিপূর্বে করেনি। যার পরিণামে বিশাল সংখ্যক পরীক্ষার্থী, যাঁরা এই শর্তটির কথা না জেনেই পরীক্ষায় বসার জন্য প্রস্তুত হচ্ছিলেন, ক্ষোভ সঞ্চারিত হয়েছে তাঁদের মনে।

“আমাদের দফতরে প্রতিদিনই অজস্র বিক্ষোভ পত্র জমা পড়ছে। সকলেরই  দাবি এক- কেন যথেষ্ট সময় হাতে রেখে বিষয়টি জানানো হয়নি। মেনে নিতে বাধ্য, এ ব্যাপারে আমাদের কিছু গাফিলতি রয়ে গিয়েছে। ফলে রেলের গ্রুপ ডি নিয়োগ পরীক্ষায় বসার জন্য আইটিআই শংসাপত্র থাকতেই হবে- এই শর্তটি মকুব করে দিচ্ছি আমরা”, জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী।

অর্থাৎ কেবলমাত্র দশম শ্রেণি উত্তীর্ণ হলেই গ্রুপ ডি-র চাকরির জন্য আবেদন করা যাবে। আইটিআই পাস করলে, সেটাও আবেদনে জানানো যাবে, তবে তা ঐচ্ছিক।

তবে গ্রুপ ডি কর্মীদের প্রশিক্ষণগত ভাবে উন্নত করার প্রয়োজনীয়তাটি খারিজ করছে না রেল। জানা গিয়েছে, যাঁরা নিয়োগ পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হবেন, তাঁদের প্রথমে কিছু দিন বিশেষ এক প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। “আইটিআই-এর শংসাপত্র সেই জন্যই আপাতত প্রয়োজন হবে না। কেন না এখন আমরাই বিশেষজ্ঞ দল দ্বারা গ্রুপ ডি কর্মীদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা করেছি”, জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী।

নতুন পরিস্থিতিতে যে ব্যাপক পরিমাণ নতুন আবেদন জমা পড়বে, তা বলাই বাহুল্য। তার জন্য আবেদনের সময়সীমা ১৫ দিন বাড়ানো হবে বলে জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী। এর জন্য রেলের পক্ষ থেকে নতুন করে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হবে।

এর আগে রেলের নিয়োগ পরীক্ষার নিয়মের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করেছিল বিহার এবং কেরল। বিহারের দাবি ছিল বয়সসীমা বাড়াতে হবে, কেরলের দাবি ছিল মালয়ালম ভাষা ঢোকাতে হবে প্রশ্নপত্রে। দুই রাজ্যের দাবিই মেনে নিয়েছিল রেল। আঞ্চলিক ভাষা হিসেবে ঢুকেছিল বাংলাও।

এ ছাড়া গ্রুপ ডি পরীক্ষার ক্ষেত্রে সাধারণ প্রার্থীদের বয়সসীমা ২৮ থেকে বাড়িয়ে ৩০, ওবিসিদের ৩৪ থেকে বাড়িয়ে ৩৬ আর তফশিলি জাতি ও উপজাতিদের জন্য ৩৬ থেকে বাড়িয়ে ৩৮ করা হয়েছে বয়সসীমা।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন