salman khan convicted

জোধপুর: কৃষ্ণসার হরিণ শিকার মামলায় পাঁচ বছরের জেল হাজতের নির্দেশ দেওয়া হল অভিনেতা সলমন খানকে। সেই সঙ্গে দশ হাজার টাকা জরিমানাও হয়েছে। বৃহস্পতিবার এই মামলায় রায় দেয় জোধপুরের আদালত। সেখানে দোষী সাব্যস্ত হন সলমন।  বেকসুর খালাস হয়ে গিয়েছেন বাকিরা।

নিম্ন আদালতের এই রায়ের বিরুদ্ধে সলমন সম্ভবত রাজস্থান হাইকোর্টে আপিল করতে পারেন। সলমনের যদি তিন বছর বা তার কম সময়ের জন্য জেল হত তা হলে তিনি নিম্ন আদালতেই আপিল করতে পারতেন।

১৯৯৮ সালের ১ অক্টোবর ‘হম সাথ সাথ হায়’ সিনেমার শুটিং চলাকালীন কৃষ্ণসার হরিণ শিকারের অভিযোগ ওঠে সলমন এবং বেশ কয়েক জন তারকার বিরুদ্ধে। এ দিন তার রায় শোনান জোধপুরের মুখ্য বিচার বিভাগীয় ম্যাজিস্ট্রেট প্রিসাইডিং অফিসার দেবকুমার খাতরি।

এ দিন রায় শোনানোর সময়ে সলমন ছাড়াও আদালতে হাজির ছিলেন বাকি অভিযুক্ত সইফ আলি খান, সোনালি বেন্দ্রে, নীলম এবং তব্বু। তবে সলমন ছাড়া আরও কেউ দোষী নয় বলে জানিয়ে দিয়েছেন বিচারক।

এর আগে আদালতে নিজের দোষ অস্বীকার করেছিলেন সলমন। জানিয়ে দিয়েছিলেন হরিণকে তিনি মারেননি, সে স্বাভাবিক ভাবেই মারা গিয়েছিল।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন