bank strike

ওয়েবডেস্ক: প্রায় ৭০ হাজার কর্মীর মধ্যে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়েছে স্টেট ব্যাঙ্কের একটা নির্দেশিকাকে কেন্দ্র করে। ‘ওভারটাইম’ কাজ করে যে টাকা তাঁরা পেয়েছেন, সেটা ফেরত চাইছে ভারতের বৃহত্তম রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক।

ইন্ডিয়া টুডে পত্রিকা জানিয়েছে, দেড় বছর আগে বিমুদ্রাকরণের সময়ে গ্রাহকদের সুবিধার্থে অতিরিক্ত সময়ে ধরে কাজ করে গিয়েছিলেন এসবিআই এবং তার সহযোগী ব্যাঙ্কগুলির কর্মীরা। এসবিআইয়ের পাশাপাশি অতিরিক্ত সময়ে কাজ করার জন্য সহযোগী ব্যাঙ্কগুলিও তাদের কর্মীদের বাড়তি ভাতা দিয়েছিল। কিন্তু গত বছর ১ এপ্রিল সব সহযোগী ব্যাঙ্ক এসবিআইয়ের সঙ্গে মিশে যায়।

এই সহযোগী ব্যাঙ্কগুলি হল স্টেট ব্যাঙ্ক অফ পাতিয়ালা, স্টেট ব্যাঙ্ক অফ হায়দরাবাদ, স্টেট ব্যাঙ্ক অফ মাইসোর, স্টেট ব্যাঙ্ক অফ ট্রাভাঙ্কোর, স্টেট ব্যাঙ্ক অফ জয়পুর ও বিকানের। স্টেট ব্যাঙ্কের নতুন নির্দেশিকা অনুযায়ী এই সহযোগী ব্যাঙ্কের কর্মীদেরই ওভারটাইম করে পাওয়া টাকা ফেরত দিতে হবে।

বিভিন্ন আঞ্চলিক কেন্দ্রে যে নির্দেশিকা এসবিআই পাঠিয়েছে, তাতে তারা সাফ জানিয়েছে শুধুমাত্র ‘নিজেদের কর্মীরাই’ এই বাড়তি টাকার যোগ্য, তৎকালীন সহযোগী ব্যাঙ্কের কর্মীরা নন। ‘অযোগ্য’ কর্মীদের থেকে যত দ্রুত সম্ভব এই বাড়তি টাকা ফেরত নেওয়ার নির্দেশ আঞ্চলিক কেন্দ্রগুলিকে দিয়েছে স্টেট ব্যাঙ্ক।

এই নির্দেশ কার্যকর হলে প্রভাব পড়বে প্রায় ৭০ হাজার কর্মীর ওপরে। ব্যাঙ্কের এ হেন নির্দেশিকার ফলে রীতিমতো ক্ষুব্ধ ব্যাঙ্ক ইউনিয়নগুলি। তাদের দাবি, এই ধরনের নির্দেশ সম্পূর্ণ অযৌক্তিক। সহযোগী ব্যাঙ্কগুলি মূল ব্যঙ্কের সঙ্গে মিশে যাওয়া মানে সেই সব ব্যাঙ্কের সমস্ত দায়ভারও নেওয়া কর্তব্য।

এই ব্যাপারে এসবিআই কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করা চেষ্টা হলেও তারা কোনো জবাব দেয়নি।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here