supreme court
ফাইল ছবি

নয়াদিল্লি: অযোধ্যার বিতর্কিত জমি মামলার রায়ের পুনর্বিবেচনার ১৮টি আর্জি খারিজ করে দিল সুপ্রিম কোর্ট। বৃহস্পতিবার ওই আর্জিগুলির শুনানিতে প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের বেঞ্চ গঠিত হয়েছিল।

এ দিন সুপ্রিম কোর্ট অযোধ্যা জমি সংক্রান্ত বিতর্ক মামলার তাৎপর্যপূর্ণ রায়ের পুনর্বিবেচনা চেয়ে সমস্ত সমস্ত আবেদনই খারিজ করে দেয়। দেশের প্রধান বিচারপতি অরবিন্দ শরদ বোবদের নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের বেঞ্চে এই আবেদনের শুনানি হয়। সাধারণ প্রক্রিয়া হিসাবেই চলে ওই শুনানি।

Loading videos...

বোবদে ছাড়া পাঁচ সদস্যের বেঞ্চে ছিলেন বিচারপতি ডি ওয়াই চন্দ্রচূড়, অশোক ভূষণ, এস এ নাজির এবং সঞ্জীব খান্না। রায়দানকারী বেঞ্চে ছিলেন তৎকালীন প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ। তিনি অবসর নেওয়ায় তাঁর জায়গায় এ দিন অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছিল বিচারপতি খান্নাকে।

আইনজ্ঞদের মতে, এ দিনের ঘটনায় কয়েক দশকের পুরানো জমি বিবাদ মামলার রায়টিকে কার্যত সিল করে দেওয়ার ইঙ্গিত রয়েছে। আবেদনকারীদের কাছে এখন একমাত্র উপায়, ওই রায়ে কোনো আইনি ত্রুটি চিহ্নিত করা।

অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল’ বোর্ড এবং নির্মোহী আখড়ার অন্তর্ভুক্ত প্রায় ১০টি পুনর্বিবেচনার আর্জি জমা পড়েছিল শীর্ষ আদালতে। প্রায় ৪০ জন নাগরিক অধিকার রক্ষাকর্মী মূল মামলায় অংশ না নিলেও পুনর্বিবেচনার আবেদন জানিয়েছিলেন।

প্রসঙ্গত, গত ৯ নভেম্বর ভারতের তৎকালীন প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈ-এর নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের বেঞ্চ এই মামলার সর্বসম্মত রায়ে জানায়, অযোধ্যার বিতর্কিত ২.৭৭ একর জমির পুরোটাই রাম লালা (শিশু ভগবান রাম)-র মন্দির নির্মাণের জন্য দেওয়া হবে। একই সঙ্গে কেন্দ্রীয় সরকারকে বিকল্প মসজিদ নির্মাণের জন্য সুন্নি ওয়াকফ বোর্ডকে পাঁচ একর জমি দেওয়ার কথা বলে শীর্ষ আদালত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.