নয়াদিল্লি : ভারত স্টেজ (বিএস) থ্রি যানবাহনের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করল দেশের সর্বোচ্চ আদালত। বুধবার সুপ্রিম কোর্ট নির্দেশ দিয়েছে, এপ্রিলের ১ তারিখ থেকে এই ধরনের যানবাহন আর বিক্রি করা যাবে না। এই ভারত স্টেজ নির্দেশিকা হল যানবাহন থেকে হওয়া দূষণ নিয়ন্ত্রণের জন্য তৈরি করা বিধি। এই নির্দেশিকার অধীনে প্রযুক্তি বদল করা নতুন ধরনের কম দূষণকারী যানবাহনকে তালিকাভুক্ত করা হয়। ১ এপ্রিল থেকে বিএস ফোর গোষ্ঠীর নতুন প্রযুক্তির গাড়ি বাজারে আসছে। সেই প্রেক্ষিতে সরকারকে ৩১ মার্চের পর থেকে দূষণ সৃষ্টিকারী পুরোনো প্রযুক্তির বিএস থ্রি যানবাহনের নথিভুক্তিকরণ বন্ধ করে দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে বিচারপতি মদন বি লাকুর আর বিচারপতি দীপক গুপ্তার বেঞ্চ। এমনকি এই পুরোনো প্রযুক্তির যানবাহন চালানোও যাবে না বলে কড়া নির্দেশ দিয়েছে আদালত। এ দিন বেঞ্চ বলে, প্রস্তুতকারকদের অর্থনৈতিক লাভ লোকসানের থেকে অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ কোটি কোটি মানুষের স্বাস্থ্য।     

শীর্ষ আদালত জানায়, গাড়ি প্রস্তুতকারক সংস্থাগুলো আগে থেকেই জানত যে এপ্রিল থেকে পরবর্তী প্রজন্মের নতুন গাড়ি চলে আসবে। তা সত্ত্বেও তারা মজুত থাকা যানবাহনগুলির ইঞ্জিন আধুনিক প্রযুক্তিসমৃদ্ধ করতে চেষ্টা করেনি। কেন্দ্রীয় সরকারও গাড়ি প্রস্তুতকারক সংস্থাগুলোর সমর্থনে শীর্ষ আদালতের কাছে আবেদন জানায়। আবেদনে বিএস থ্রি যানবাহন বিক্রি করার সময়সীমা বাড়ানোর আর্জি জানানো হয়। কিন্তু সুপ্রিম কোর্ট সেই আবেদন খারিজ করে দিয়েছে।

বেঞ্চ বলে, এর আগে ২০০৫ আর ২০১০ সালে যখন নতুন প্রযুক্তি বাজারে আনার নিয়ম জারি হয়, তখন প্রস্তুতকারী সংস্থাগুলো মজুত থাকা গাড়ির বন্দোবস্ত করার সুযোগ পেয়েছিল।

প্রসঙ্গত,  বর্তমানে মোটরগাড়ি সংস্থাগুলির কাছে ৮ লাখ ২৪ হাজার ২৭৫টি বিএস গাড়ি মজুত আছে। যার মধ্যে বাণিজ্যিক যানবাহনের সংখ্যা ৯৬ হাজার ৭২৪, দু’ চাকার গাড়ি ৬ লাখ ৭১ হাজার ৩০৮, তিন চাকার যানবাহন ৪০ হাজার ৪৮ আর চার চাকার গাড়ি ১৬ হাজার ১৯৮টি।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন