নয়াদিল্লি : ভারতীয় বায়ুসেনায় কর্মরতরা দাড়ি রাখতে পারবেন না – রায় সুপ্রিম কোর্টের। বৃহস্পতিবার প্রধান বিচারপতি টি এস ঠাকুরের বেঞ্চ রায় দেয়, বায়ুসেনার কাজে বহাল থাকাকালীন লম্বা দাড়ি রাখা যাবে না। পাশাপাশি রায় দেওয়ার সময় তিনি এ-ও বলেন, বায়ুসেনার  বিধিতে কখনোই ধর্মীয় অধিকার লঙ্ঘিত হচ্ছে না। কারও মৌলিক অধিকারেও হস্তক্ষেপ করা হচ্ছে না। ২০০৮ সালে বায়ুসেনার প্রাক্তন কর্মী আফতব আনসরি আইএএফ-এর নিয়মকে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে মামলা করেন। এ দিন সেই মামলারই রায় দেয় শীর্ষ আদালত।     

আনসরির বক্তব্য ছিল, মুসলমানদের দাড়ি রাখার কোনো অধিকার দেয় না আইএএফ। তাই ধর্মীয় কারণে দাড়ি রাখা এই কাজের ক্ষেত্রে একটা বিশেষ সমস্যা। কিন্তু সকলেরই ধর্মীয় স্বাধীনতার অধিকার আছে। তিনি এ-ও বলেন, শিখদের লম্বা দাড়ি, পাগড়ি রাখার অনুমতি আছে।

এর উল্টো দিকে আইএএফ জানিয়ে দেয়, ইসলাম কখনোই বলে না দাড়ি রাখতে হবে। অনেক মুসলমানই আছেন যাঁরা দাড়ি রাখেন না। এটা ঐচ্ছিক ব্যাপার, বাধ্যতামূলক নয়। কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী এ কে অ্যান্টনিও মন্তব্য করেন, কোনো মুসলমান ধর্মাবলম্বী দাড়ি রাখলে কেউ মানা করবে না, আবার রাখাটা বাধ্যতামূলকও নয়।

 

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here