গিয়েছিলেন গাছ লাগাতে, শাসক দলের কর্মীদের মারে রক্তাক্ত হয়ে হাসপাতালে বন বিভাগের মহিলা অধিকারিক

0

হায়দরাবাদ: গাছ লাগানোর কর্মসূচি নিয়ে সিরপুর-কাঘাজনগরে গিয়েছিলেন তেলঙ্গনার রাজ্য বন বিভাগের মহিলা আধিকারিক। কিন্তু সেখানে জড়ো হওয়া রাজ্যের শাসক দলের কর্মীদের হাতে মার খেয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় তাঁকে কোনো রকমে উদ্ধার করে নিয়ে আসেন সহকর্মীরা। ভরতি করা হাসপাতালে।

সংবাদ সংস্থা এএনআইয়ের শেয়ার করা একটি ভিডিওয় স্পষ্টতই দেখা গিয়েছে, গত শনিবার ওই এলাকায় যাওয়া তেলঙ্গনা বন বিভাগের ফরেস্ট রেঞ্জ অফিসার সি অনিতার উপর হামলা চালাচ্ছে তেলঙ্গনা রাষ্ট্রীয় সমিতি (টিআরএস)-র কর্মীরা। একটি ট্র্যাক্টরের উপর দাঁড়িয়ে থাকা অনিতাকে নির্মম ভাবে পেটানো হচ্ছে বাঁশ-কাঠ দিয়ে।

ওই ভিডিওয় দেখা গিয়েছে, পুলিশের উপস্থিতিতেই চলছে হামলা। পুলিশ উত্তেজিত টিআরএস কর্মীদের নিরস্ত করার চেষ্টা করলেও তা সফল হয়নি।

জানা গিয়েছে, এলাকার ২০ হেক্টর একটি জমিতে গাছ লাগানোর কর্মসূচি নিয়ে সেখানে যান অনিতা। রাজ্য সরকারে নির্দেশেই ওই এলাকায় গিয়েছিলেন বন বিভাগের প্রতিনিধিরা। তেলঙ্গনার মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাওয়ের ‘দ্বিতীয় বৃহত্তম স্বপ্নের প্রকল্প’ কমলেশ্বর সেচ প্রকল্পের অধীন ওই জমিতে বৃক্ষরোপণের পরিকল্পনা নিয়েছে তাঁরই সরকার।

হাসপাতালে ভরতি অনিতা জানিয়েছেন, তাঁকে যাঁরা আক্রমণ করে, তাঁদের মধ্যে ছিলেন স্থানীয় একটি প্রশাসনিক বিভাগের চেয়ারম্যান কনেরু কৃষ্ণা। যিনি স্থানীয় টিআরএস বিধায়কের ভাই। একই সঙ্গে তিনি জানান, যাঁরা তাঁর উপর হামলা চালান, তাঁদের মধ্যে বেশ কয়েক জন কৃষকও ছিলেন।

এই ঘটনার পর বিধায়কের ভাই-সহ ছ’জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.