supreme court
  • সু্প্রিম কোর্টে শূন্যপদ ৬       
  • ২০১৮-য় অবসর নিচ্ছেন ৭ বিচারপতি
  • দেশের ২৪টি হাই কোর্টে শূন্যপদ ৩৯৫টি 
  • নিম্ন আদালতে শূন্যপদ ৫৯৮৪টি

নয়াদিল্লি: এমনিতে ছ’টি বিচার বিভাগীয় শূন্যপদ এখনও পূরণ হয়নি সুপ্রিম কোর্টে। তার উপর ২০১৮ সালে সাত জন বিচারপতি অবসর নিতে চলেছেন।

এই শূন্যপদে নিয়োগ না হওয়ার কারণ হিসাবে বলা হচ্ছে, সরকারের সঙ্গে সু্প্রিম কোর্টের কলেজিয়ামের দ্বিমত পোষণ। মেমোরেন্ডাম অব প্রসিডিউর বা এমওপি-র বিতর্কে দাঁড়ি টানা না গেলে নতুন নিয়োগ থমকে যাচ্ছে। শুধু এমওপি বাধা নয়, গত ২০১৫-তেই এনডিএ সরকারের মস্তিষ্কপ্রসূত ন্যাশনাল জুডিসিয়াল অ্যাপয়েন্টমেন্টস কমিশনকে একটি রায়ে অবৈধ হিসাবে আখ্যা দিয়েছে সুপ্রিম কোর্টের সাংবিধানিক বেঞ্চ। পাশাপাশি বেঞ্চ নির্দেশ দেয়, কমিশনের মাধ্যমে নিয়োগ না করে এমওপি-র মাধ্যমে নিয়োগ প্রক্রিয়ার রূপরেখা তৈরি করা হোক।

সুপ্রিম কোর্টের সঙ্গে সহমত হয়ে প্রথম খসড়া এমওপি পাঠানো হয় ২২ মার্চ,২০১৬। সুপ্রমি কোর্ট এর প্রত্যুত্তর পাঠায় ওই বছরের ২৫ মে এবং ১ জুলাই। আগস্টের ৩ তারিখে সরকার পুনরায় নিয়োগ প্রক্রিয়ার স্বচ্ছতা, একটি পৃথক পরিচালন মণ্ডলী, যোগ্যতামান এবং অন্যান্য আনুষঙ্গিক বিষয়ে আলোকপাত করে। সব কিছুর গুরুত্ব বিচার করে সুপ্রিম কোর্টের কলেজিয়াম চুড়ান্ত খসড়াটি প্রেরণ করে ১৩ মার্চ ২০১৭। কিন্তু সেটিও সরকারের বিবেচনায় বাতিল হয়ে যায়।

ফলে এমওপি বিতর্কে নিয়োগ প্রক্রিয়া থমকে থাকায় ২৫ জন বিচারপতি এখনও পর্যন্ত দায়িত্ব সামলাচ্ছেন। ছ’টি পদ শূন্য থাকায় তাঁদের বাড়তি চাপ নিতে হচ্ছে। এরই মধ্যে আগামী বছর আরও সাত জন বিচারপতি অবসর নিলে পরিস্থিতি কোথায় গিয়ে দাঁড়াবে তা অনুমানের বাইরে।

এ ছাড়া দেশের ২৪টি উচ্চ আদালতে ৩৯৫টি শূন্যপদও ভাবিয়ে তুলেছে সুপ্রিম কোর্টকে। পাশপাশি অধীনস্ত নিম্ন আদালতের ৫৯৮৪টি শূন্যপদের চিন্তাও রয়েছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here