নয়াদিল্লি ও কোহিমা: নাগাল্যান্ডের পরিস্থিতি এখনও থমথমে। উত্তেজনার আগুন এখনও নিভে যায়নি। যে কোনো মুহূর্তে পরিস্থিতি আবার অগ্নিগর্ভ হয়ে উঠতে পারে। পরিস্থিতি কী রকম, তা রবিবার দফায় দফায় সংঘর্ষ বুঝিয়ে দিয়েছে।

নিহতদের পরিবারে সঙ্গে দেখা করতে দেখা করতে সোমবার তৃণমূলের একটি প্রতিনিধি দলের ওটিং গ্রামে যাওয়ার কথা ছিল। প্রতিনিধি দলে ছিলেন, সাংসদ সুস্মিতা দেব, প্রসূন বন্দ্যোপাধ্যায়, অপরূপা পোদ্দার, শান্তনু সেন এবং ত্রিপুরা তৃণমূলের মুখপাত্র বিশ্বজিৎ দেব। কিন্তু অশান্তির আশঙ্কায় প্লেনে ওঠার আগে সফর বাতিল করে তৃণমূল।

তৃণমূল সূত্রে খবর, নাগাল্যান্ডের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি খুব খারাপ। ফলে এই দলের নিরাপত্তার দায়িত্ব নিতে চাইছে না সরকার। একই সঙ্গে প্রতিনিধি দলের সূত্রে জানানো হয়েছে, ওই প্রতিনিধি দলকে হয়তো গুয়াহাটি বিমানবন্দরেই আটকে দেওয়া হবে এবং বলা হবে ওই প্রতিনিধিরা যাওয়ার ফলেই অসম-নাগাল্যান্ডে আইনশৃঙ্খলার অবনতি হয়েছে। এই সব কারণেই এ দিনের প্রস্তাবিত সফর বাতিল করে দিয়েছে তৃণমূল।

সোমবার সংসদের অধিবেশনের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী মন্ত্রিসভার জরুরি বৈঠক ডাকেন। এর পরেই লোকসভায় ঘটনাটি নিয়ে বিবৃতি দেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। সেখানে তিনি বলেন, ভুল বোঝাবুঝির জন্যই নাগাল্যান্ডে এই হত্যালিলার ঘটনা ঘটেছে।

রবিবার টুইট করে নাগাল্যান্ডের ঘটনায় দুঃখপ্রকাশ করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মমতা লেখেন, “নাগাল্যান্ড থেকে খুব খারাপ খবর এসেছে। শোকাহত পরিবারের প্রতি আন্তরিক সমবেদনা রইল। যাঁরা আহত হয়েছেন, তাঁদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করছি।”

আরও পড়তে পারেন:

মে মাসে ৬-৮ দফায় বকেয়া পুরভোট, কলকাতা হাইকোর্টে জানাল নির্বাচন কমিশন

‘ভুল বোঝাবুঝির কারণে গুলি চলেছিল’, নাগাল্যান্ডের ঘটনা নিয়ে লোকসভায় বিবৃতি দিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ

অসময়ের রেকর্ড বৃষ্টি বাংলার শস্যভাণ্ডারে, মাঠেই নষ্ট হল পাকা ধান

দুশোর ঘরে নামল দৈনিক মৃত্যু, আরও কমল সক্রিয় রোগী

কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জায়গায় ডিসেম্বরের নিরিখে বৃষ্টির পরিমাণে রেকর্ড

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন