biplab-deb

ওয়েবডেস্ক: রাজ্যের সমস্ত বাসিন্দার কাছে নাগরিকত্বের বৈধ কাগজপত্র আছে দাবি করে ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব বলেন, এ রাজ্যে অসমের মতো নাগরিকপঞ্জির কোনো প্রয়োজন নেই। অসমে ন্যাশনাল সিটিজেন্স রেজিস্টার প্রকাশ করার পরই দেশ জুড়ে চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। এরই মধ্যে মঙ্গলবার বিজেপি শাসিত ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীর এহেন মন্তব্য নিয়েও চলছে চুলচেরা বিশ্লেষণ।

বাংলা বিজেপির তরফে দলের রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ হুমকি দিয়ে বলেছেন, বাংলায় বিজেপি ক্ষমতায় এলে এখানেও অসমের মতো নাগরিকপঞ্জি তৈরি করা হবে।

বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সেই কথার সূত্র ধরেই এ দিন দিল্লিতে বলেন, “শুনছি, বাংলায় এর পর এনসিআর হবে। তার পর অন্যান্য রাজ্যেও হবে…। বাংলায় বিজেপি দিবা স্বপ্ন দেখছে”।

মমতার এমন মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে মুখ খুলেছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ। তিনি বলেছেন, রাজ্যগুলির সঙ্গে আলোচনা করেই এনসিআর নিয়ে এগোবে কেন্দ্র।

এরই মাঝে বিল্পববাবুর মন্তব্য নিয়ে যথেষ্ট শোরগোল পড়ে গিয়েছে। তিনি জানিয়েছেন, ৩০ জুলাই প্রকাশিত অসমের ওই তালিকা নিয়ে যে বিভ্রান্তির সৃষ্টি হয়েছে, পরবর্তীকালে তা মিটে যাবে।

আরও পড়ুন: বিধানসভায় পাশ হল অসম নিয়ে প্রস্তাব, একজোট বাম-কংগ্রেস-তৃণমূল

বিপ্লববাবু বর্তমানে নাগপুরে আছেন। সেখানে আরএসএস প্রধান মোহন ভাগবতের সঙ্গে তাঁর আলোচনার ফাঁকেই তিনি জানান, ত্রিপুরায় সব কিছু আইন মেনেই চলছে। সেখানে প্রত্যেকের কাছেই বৈধ কাগজপত্র আছে। ফলে আমাদের রাজ্যে এটা কোনো ইস্যু নয়।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here