পাকিস্তানের সঙ্গে উত্তেজনা কমান, মোদীকে ট্রাম্প

ট্রাম্পকে মোদী বলেন, ভারত-বিরোধী হিংসাকে উসকানি দিলে আঞ্চলিক শান্তি সুনিশ্চিত করা যাবে না।

0
trump and modi
প্রতীকী ছবি। সৌজন্যে স্ক্রল ডট ইন।

ওয়েবডেস্ক: ভারতকে পাকিস্তানের সঙ্গে উত্তেজনা কমাতে বলল আমেরিকা। সোমবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে ফোন করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। সেই ফোনালাপেই মোদীকে এই পরামর্শ দেন ট্রাম্প। মার্কিন বিদেশ দফতরের এক বিবৃতিতে এই খবর দেওয়া হয়েছে।

ওই ফোনালাপে ট্রাম্পকে মোদী বলেন, ভারত-বিরোধী হিংসাকে উসকানি দিলে আঞ্চলিক শান্তি সুনিশ্চিত করা যাবে না। ভারতের বিদেশ মন্ত্রক এক বিবৃতিতে মোদী-ট্রাম্প ফোনালাপ সম্পর্কে এই কথা বলেছে।   

আরও পড়ুন ‘বেপরোয়া, অবিবেচক ও দায়িত্বজ্ঞানহীন,’ পাকিস্তানকে তীব্র ধমক আফগানিস্তানের

দুই দেশের প্রধানের মধ্যে ৩০ মিনিট কথাবার্তা হয়। তাতে দু’ দেশের বাণিজ্যিক সম্পর্ক নিয়েও কথা হয়। কী ভাবে বাণিজ্য বাড়িয়ে দু’ দেশের মধ্যে অর্থনৈতিক সম্পর্ক জোরদার করা যায়, তা নিয়ে দুই নেতা কথা বলেন। এ ছাড়া ভারতীয় উপমহাদেশ অঞ্চলের পরিস্থিতি নিয়েও আলোচনা হয়।

হোয়াইট হাউসের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, “ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে উত্তেজনা কমানো এবং এই অঞ্চলে শান্তি বজায় রাখা যে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বিষয়, সে কথা প্রেসিডেন্ট বুঝিয়ে বলেন।”

এর আগে গত শুক্রবার পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেন ট্রাম্প। রাষ্ট্রপুঞ্জের নিরাপত্তা পরিষদে যে দিন কাশ্মীর পরিস্থিতি এবং কাশ্মীরে ভারতীয় সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ রদ নিয়ে আলোচনা হয়, সে দিনই সকালে ইমরান-ট্রাম্প কথা হয়।

৫ আগস্ট জম্মু-কাশ্মীরে ৩৭০ অনুচ্ছেদ রদ করে দেওয়ার পর এই প্রথম মোদী-ট্রাম্প সরাসরি কথা হল।

পাকিস্তানের নাম না করে মোদী-ট্রাম্প কথার ব্যাপারে ভারতের বিদেশ মন্ত্রকের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, “আঞ্চলিক পরিস্থিতি প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ভারত-বিরোধী হিংসায় অঞ্চলের কিছু নেতার ইন্ধন জোগানো এবং উসকানি দেওয়া শান্তির পক্ষে সহায়ক নয়।”

ওই বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, “তিনি (প্রধানমন্ত্রী) সন্ত্রাস ও হিংসামুক্ত পরিবেশ সৃষ্টি এবং বাছবিচার না করে সীমান্তপার সন্ত্রাস বন্ধের গুরত্বের উপর জোর দেন।”

আফগানিস্তানের পরিস্থিতি নিয়েও দুই নেতার কথা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here