২০০৮ সালের ১৮ ফেব্রুয়ারির ভোরে গোয়ার আনজুনা বিচে দেহ পাওয়া গিয়েছিল  ১৫ বছর বয়সি ব্রিটিশ কিশোরী স্কারলেট কিলিং-এর। ধর্ষণ ও খুনের দায়ে গ্রেফতার হয়েছিলেন প্লাসিডো কার্ভালহো(৪৮) ও স্যামসন ডিসুজা(৩৭)। শুক্রবার গোয়ার শিশু আদালত দুজনকেই নির্দোষ সাব্যস্ত করল। ঘটনার সময় ৬ মাসের ভারত সফরে এসেছিলেন স্কারলেট ও তার পরিবার। আদালতের রায়ে তিনি ‘বিধ্বস্ত’ বলেছেন স্কারলেটের মা ফিওনা ম্যাককেওন। এই রায়ের বিরুদ্ধে তিনি উচ্চ আদালতে যাবেন বলে জানিয়েছেন স্কারলেটের মা।  

ম্যাককেওন বলেছেন, ‘আমি সেই থেকে ঘুরে চলেছি। আট বছর যন্ত্রণার মধ্যে কেটেছে। আমি এই দিনটার অপেক্ষায় ছিলাম। কিন্তু এই রায় জঘন্য। ভারতের বিচার ব্যবস্থা আমায় সম্পূর্ণ হতাশ করেছে। এই দেশের কেউ আমার মেয়েকে হত্যা করেছে এবং কাউকে তার দায়িত্ব নিতেই হবে’।

ঘটনার সময় দুমাস গোয়ায় থেকে কর্নাটকে গিয়েছিল স্কারলেটের পরিবার। কিন্তু ভ্যালেন্টাইন বিচ পার্টিতে যোগ দিতে গোয়ায় ফিরে এসেছিলেন স্কারলেট একাই।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here