বাল ঠাকরেকে দেওয়া কথা রাখছেন উদ্ধব, নতুন মুখ্যমন্ত্রীর নাম ঘোষণা পওয়ারের

0
uddhav thackeray
ফাইল ছবি

ওয়েবডেস্ক: এই প্রথম বাল ঠাকরে পরিবারের কোনো সদস্য রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী হচ্ছেন। শুক্রবার মহারাষ্ট্রে সরকার গঠন নিয়ে বৈঠকে বসেন কংগ্রেস-এনসিপি এবং শিবসেনার উচ্চনেতৃত্ব। বৈঠক শেষে এনসিপি প্রধান শরদ পওয়ার আনুষ্ঠানিক ভাবে ঘোষণা করেন, মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী হচ্ছেন উদ্ধব ঠাকরে।

মুম্বইয়ের নেহরু সেন্টারে বসে কংগ্রেস-এনসিপি এবং শিবসেনা বৈঠক। মহারাষ্ট্রে অ-বিজেপি সরকার গঠন নিয়ে শুক্রবারের ওই বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন তিন দলের উচ্চনেতৃত্ব। সূত্রের খবর, জোট সরকারের উপ-মুখ্যমন্ত্রীপদের জন্য প্রস্তাব দেওয়া হয় অজিত পওয়ারকে। তিনি ওই প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করেন।

এমনিতে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রীপদের দাবিতে অনড় ছিল উদ্ধব ঠাকরের শিবসেনা। এই দাবির জন্যই দীর্ঘদিনের জোটসঙ্গী বিজেপির সঙ্গে তাদের বিরোধী। ফলশ্রুতিতে জোট ভেঙে গিয়েছে দু’দলের। রাজ্যে জারি হয়েছে রাষ্ট্রপতি শাসন। এমন পরিস্থিতি থেকে উদ্ধার পেতে চিরবৈরিতা ভুলে তিন দল গড়ে তুলেছে মহারাষ্ট্র বিকাশ অঘাধি। সেই জোটেরই মুখ্যমন্ত্রী হতে চলেছেন উদ্ধব।

প্রসঙ্গত, সরকার গঠন নিয়ে কোন্দলের মাঝেই উদ্ধব জানিয়েছিলেন, তিনি তাঁর বাবা শিবসেনা প্রতিষ্ঠাতা বাল ঠাকরের মৃত্যুর আগে তাঁকে কথা দিয়েছিলেন। তিনি স্পষ্টতই জানান, “বিজেপির সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীপদ ছাড়া আর কোনো বিষয়েই আমি কথা বলব না। আমি আমার বাবা প্রয়াত বাল ঠাকরের কাছে করা প্রতিজ্ঞা রক্ষা করতে বদ্ধ পরিকর”।

[ আরও পড়ুন: বাই বাই বিজেপি! শুক্রবারের সন্ধ্যায় সূচনা নতুন বন্ধুত্বের ]

এ দিন এনসিপি প্রধান শরদ পওয়ার পিটিআইকে জানান, “উদ্ধব ঠাকরেকে সর্বসম্মতিক্রমে মহারাষ্ট্র সরকারের নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য বেছে নেওয়া হয়েছে”।

যদিও বৈঠক থেকে বেরিয়ে এসে মুখ্যমন্ত্রিত্ব নিয়ে কোনো মন্তব্য করেননি উদ্ধব ঠাকরে। সংবাদ মাধ্যমের কাছে তিনি বলেন, “আমরা মহারাষ্ট্রের ভবিষ্যতের পথ সন্ধানের সিদ্ধান্ত নিয়েছি”।

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন