varun gandhi
বরুণ গান্ধী। ফাইল ছবি

ভিওয়ানি: ‘অন্যায়ের বিরুদ্ধে আওয়াজ তুললেই ওরা ভাবে আমি নাকি সমস্যা বাড়াচ্ছি,’ নিজের দলের বিরুদ্ধে এ ভাবেই বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন বিজেপি সাংসদ বরুণ গান্ধী।

একটি স্কুলের একটি অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখছিলেন বরুণ। সেখানে তিনি বলেন, “সাংসদদের ভাতা বাড়ানোর বিরোধী আমি। ভাতা বাড়ানোর বিরুদ্ধে মাঝেমধ্যেই নিজের মতামত জানিয়েছি। কর্মীদের ভাতা বাড়ে কারণ তাঁরা পরিশ্রম করেন, কর্মক্ষেত্রে সততা দেখান। কিন্তু গত দশ বছরে শুধুমাত্র হাত তোলার জন্য সাংসদের ভাতা বেড়েছে সাত গুণ।”

এর পর তিনি আরও যোগ করেন, “ঠিক এই কথাটা বলার জন্যই এক বার প্রধানমন্ত্রীর অফিস থেকে আমায় ফোন করা হল। বলা হল, ‘কেন আমাদের সমস্যা বাড়াচ্ছ’?”

উত্তরপ্রদেশের স্কুলে শিক্ষাব্যবস্থা নিয়েও বড়োসড়ো প্রশ্ন তুলে দেন বরুণ। তিনি বলেন, “পড়াশোনা ছাড়া, উত্তরপ্রদেশের স্কুলে সব কিছুই হয়। ধর্মীয় অনুষ্ঠান, বিবাহ অনুষ্ঠান, শ্রাদ্ধানুষ্ঠান। ছাত্রছাত্রীরা স্কুলে এসে ক্রিকেট খেলে আর নেতারা বক্তৃতা দিয়েই চলে যান।” তাঁর অভিযোগ, “পড়াশোনার পেছনে প্রতি বছর ৩ লক্ষ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়। তার ৮৯ শতাংশই খরচা হয় স্কুলবাড়ির পেছনে। এটাকে তো শিক্ষার উন্নয়ন বলা যায় না।”

পাশাপাশি কৃষকদের আত্মহত্যা নিয়েও সরকারের ভূমিকার সমালোচনা করেন বরুণ।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here