Rape Symbolic Photo
প্রতীকী ছবি

ওয়েবডেস্ক: জামিনে মুক্তি পেয়েছিল ২২ বছরের কিশোর বিলাস অওয়াধ। বাবাকে খুনের অভিযোগে জেল খাটছিল সে। সে দিনই জামিন পেয়েছিল বলে পুলিশ সূত্রে খবর। এর পর ওই দিন রাতেই ২৯ বছর বয়সি এক বিধবা মহিলার উপর ধর্ষণের উদ্দেশ্য নিয়ে চড়াও হয়। তবে নিজের উপস্থিত বুদ্ধির জেরে ধর্ষকের নাগাল থেকে কোনোরকমে নিজেকে মুক্তি করেন ওই মহিলা।

ঘটনাটি মহারাষ্ট্রের অরঙ্গাবাদ জেলার রাজনগরে। জানা গিয়েছে, গত ২৫ মার্চ জামিনে মুক্তি পেয়ে খুনের আসামি কিশোর চড়াও হয় ওই মহিলার উপর। সে দিন শাহনুরদরগার কাছে নিজের ছ’বছরের মেয়েকে নিয়ে কোনো গাড়ির জন্য অপেক্ষা করছিলেন ওই মহিলা। সে সময় ওই রাস্তা দিয়েই নিজের মোটর বাইকে করে যাচ্ছিল কিশোর। সে মা-মেয়েকে দেখে বাড়ি পর্যন্ত ছেড়ে দেওয়ার কথা জানায়। প্রথম রাজি না হলেও কোনো গাড়ি পাওয়া যাচ্ছে না দেখে মহিলা শেষমেশ রাজি হন।

কিন্তু তাঁদের বাড়ি ছেড়ে দেওয়ার বদলে নিয়ে যাওয়া হয় রাজনগরের একটি নালার ধারে। সেখানে ছুরির সামনে মহিলাকে ধর্ষণের চেষ্টা করে কিশোর। তাৎক্ষণিক বুদ্ধি খাটিয়ে মহিলা বলেন, তিনি এইচআইভি আক্রান্ত।

[ আরও পড়ুন: টানা আট ঘণ্টার চেষ্টায় ১১০ ফুট গভীর কূপ থেকে উদ্ধার ৫ বছরের শিশু ]

এ কথা শোনার পরই কিশোর ওই স্থান ছেড়ে পালায়। এর পরই মহিলা কিশোরের বিরুদ্ধে অপহরণ, ধর্ষণের চেষ্টা এবং পকসো ধারায় অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ মহিলার বিবরণ মতো কিশোরের স্কেচ তৈরি করে। বিশেষ করে তার গায়ে থাকা ট্যাটুগুলি থেকেও কিশোরকে শনাক্তকরণ সহজ হয়ে যায়।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here