তেজপুর(অসম): মঙ্গলবার থেকে নিখোঁজ ভারতীয় বায়ূসেনার সুখোই সু-৩০ যুদ্ধবিমানের খোঁজ মিলল চিন সীমান্তের কাছে। অসমের তেজপুর থেকে ৬০ কিমি দূরে। তবে বিমানের দুই পাইলটের এখনও কোনো চিহ্ন মেলেনি।

বিমানটি যেখানে ভেঙে পড়েছে, সেটি ঘন জঙ্গল। আবহাওয়া খারাপ থাকায় এবং ঘন জঙ্গলের জন্য উদ্ধারকারী দল এখনও বিমানের কাছে পৌঁছতে পারেনি।

মঙ্গলবার সকাল সাড়ে নটায় রুটিন প্রশিক্ষণে উড়েছিল বিমানটি। সাড়ে এগারোটা নাগাদ অরুণাচল প্রদেশের দৌলাসাং অঞ্চলের কাছে বিমানটির সঙ্গে রাডারের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। জায়গাটি তেজপুর থেকে ৬০ কিলোমিটার দূরে, চিন সীমান্তের কাছে। সেখানেই বিমানের ধ্বংসাবশেষ পাওয়া গেছে। তেজপুর এয়ারফোর্স স্টেশন থেকে চিন সীমান্ত ১৭২ কিমি দূরে।

সুখোই সু-৩০ যুদ্ধবিমানটি ১৯৯০-এর দশকের শেষদিকে ভারতীয় বিমানবাহিনীতে যুক্ত হয়। রাশিয়ায় তৈরি এই বিমান ২টি ইঞ্জিন-বিশিষ্ট। এটি সবরকম আবহাওয়ায় আকাশ থেকে আকাশ এবং আকাশ থেকে ভূমিতে অভিযান করতে পারে। বিমানবাহিনীতে যুক্ত হওয়ার পর থেকে সু-৩০ ৬বার দুর্ঘটনার মুখোমুখি হয়েছে। প্রতিক্ষেত্রেই দেখা গেছে প্রযুক্তিগত ত্রুটির কারণেই সেগুলি হয়েছে।

তেজপুরে এই মুহূর্তে ২ স্কোয়াড্রন সু-৩০ বিমান রয়েছে। প্রতি স্কোয়াড্রনে ১২-১৬টি বিমান রয়েছে।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন