30 C
Kolkata
Friday, June 18, 2021

রাজ্যে সংক্রমণের হার নামল ৮ শতাংশের নীচে, কলকাতায় আক্রান্ত পাঁচশোর কম

আরও পড়ুন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রাজ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থতার পরিসংখ্যানটি ঠিকঠাক আপডেট করা হয়নি। সে কারণে এ দিন দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যার থেকে বেশ কিছুটা কম ছিল সুস্থতার সংখ্যা। ফলে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা সামান্য বেড়েছে।

তবে এ ছাড়া নেতিবাচক আর কিছুই নেই কোভিড পরিসংখ্যানে। মৃত্যুর সংখ্যা নেমেছে ৯০-এর নীচে, সংক্রমণের হার নেমেছে ৮ শতাংশের নীচে। সর্বোপরি কলকাতায় নতুন আক্রান্তের সংখ্যাটি পাঁচশোর কম হয়েছে।

Loading videos...

রাজ্যের কোভিড পরিস্থিতি

- Advertisement -

মঙ্গলবার স্বাস্থ্য দফতরের প্রকাশিত বুলেটিন অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় গোটা রাজ্যে আক্রান্ত হয়েছেন ৫ হাজার ২৭৪ জন। এখনও পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা ১৪ লক্ষ ৪৮ হাজার ১৪০।

গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৫ হাজার ১৭০ জন। এর ফলে এখনও পর্যন্ত রাজ্যে মোট কোভিডজয়ীর সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১৪ লক্ষ ১৬ হাজার ৭৪৩ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ৮৭ জনের মৃত্যু হয়েছে রাজ্যে। রাজ্যে এখনও পর্যন্ত কোভিডে প্রাণ হারিয়েছেন মোট ১৬ হাজার ৬৪২ জনের।

রাজ্যে বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ১৪ হাজার ৭১৯ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ১৭ জন সক্রিয় রোগী বেড়েছে রাজ্যে। রাজ্যে সুস্থতার হার রয়েছে ৯৭.৮৩ শতাংশ।

দৈনিক সংক্রমণের হার ৮ শতাংশের নীচে

সংক্রমণের দাপট কতটা রয়েছে সেটা ভালো করে বুঝতে গেলে দৈনিক সংক্রমণের হারের দিকে তাকাতে হয়। প্রতি ১০০ টেস্টে কত জনের রিপোর্ট পজিটিভ হচ্ছে, সেটাকেই সংক্রমণের হার বলে। এই হারটা কম থাকলে বুঝতে হবে যে সংক্রমণের দাপট কমেছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে টেস্ট হয়েছে ৬৬ হাজার ২৫৭টি, যা তার আগের ২৪ ঘণ্টার থেকে প্রায় ২ হাজার বেশি। এর বিপরীতে সংক্রমণের হার ছিল ৭.৯৬ শতাংশ। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার গাইডলাইন বলে এই হারকে ৫ শতাংশে নীচে নামিয়ে আনা গেলে বলা যাবে যে সংক্রমণকে নিয়ন্ত্রণে আনা গিয়েছে। রাজ্যের পরিস্থিতি যে সেই দিকেই এগিয়ে যাচ্ছে, তা বলাই বাহুল্য।

বুধবার পর্যন্ত মোট ১ কোটি ৩১ লক্ষ ১০ হাজার ৮৫৩টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে।

কলকাতা ও উত্তর ২৪ পরগণার পরিস্থিতি

কলকাতা এবং উত্তর ২৪ পরগণা – রাজ্যে কোভিডে সব থেকে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত দুই জেলাতেই এখন অত্যন্ত দ্রুত গতিতে কমছে সংক্রমণ। কলকাতার পর এখন উত্তর ২৪ পরগণাতেও দৈনিক সংক্রমণ এক হাজারের নীচে এসে গিয়েছে। একই ভাবে বড়ো ঝাঁপ দিচ্ছে সক্রিয় রোগীর সংখ্যাও।

কলকাতায় গত ২৪ ঘণ্টায় ৪৮৫ এবং উত্তর ২৪ পরগণায় ৯৬৬ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এই দুই জেলায় সুস্থ হয়েছেন যথাক্রমে ৫৫৮ এবং ১৩২৭ জন। দুই জেলাতেই ২৪ জন করে কোভিডরোগীর মৃত্যু হয়েছে।

কলকাতায় এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৩ লক্ষ ৩ হজার ৪, উত্তর ২৪ পরগণায় মোট আক্রান্ত ৩ লক্ষ ৮ হাজার ৮৭২। কলকাতায় বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ১ হাজার ৪০১ জন এবং উত্তর ২৪ পরগণায় ২ হাজার ৪৬১ জন। দুই জেলায় মৃত্যু হয়েছে যথাক্রমে ৪৭০৭ এবং ৪২১৭ জনের।

রাজ্যের বাকি জেলার চিত্র

উত্তরবঙ্গের জেলাগুলি বাদে রাজ্যের বাকি জেলাতেও ব্যাপক ভাবে কমছে সংক্রমণ। তবে গত ২৪ ঘণ্টায় সম্ভবত সুস্থতার পরিসংখ্যান ঠিকঠাক আপডেট করা হয়নি। সে কারণেই অনেক জেলাতেই সক্রিয় রোগী বেড়ে গিয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় কোন জেলায় সংক্রমণ কেমন ছিল দেখে নিন।

১) আলিপুরদুয়ার

নতুন করে আক্রান্ত – ১৭২

সুস্থ হলেন – ৫৮

২) কোচবিহার

নতুন করে আক্রান্ত – ১৮৩

সুস্থ হলেন – ৭৭

৩) দার্জিলিং

নতুন করে আক্রান্ত – ৩২৫

সুস্থ হলেন – ৩৪৭

৪) কালিম্পং

নতুন করে আক্রান্ত – ৩৭

সুস্থ হলেন – ৩০

৫) জলপাইগুড়ি

নতুন করে আক্রান্ত – ২৮৮

সুস্থ হলেন – ৩৫৬

৬) উত্তর দিনাজপুর

নতুন করে আক্রান্ত – ৪৫

সুস্থ হলেন – ৪৯

৭) দক্ষিণ দিনাজপুর

নতুন করে আক্রান্ত – ৫৭

সুস্থ হলেন – ৫৩

৮) মালদহ

নতুন করে আক্রান্ত – ৪৭

সুস্থ হলেন – ৪৫

৯) মুর্শিদাবাদ

নতুন করে আক্রান্ত –২২

সুস্থ হলেন – ৪৫

১০) নদিয়া

নতুন করে আক্রান্ত – ৩৪২

সুস্থ হলেন – ৩৬৪

১১) বীরভূম

নতুন করে আক্রান্ত – ৫৬

সুস্থ হলেন – ৫০

১২) পশ্চিম বর্ধমান

নতুন করে আক্রান্ত – ১০৪

সুস্থ হলেন – ৭৪

১৩) পূর্ব বর্ধমান

নতুন করে আক্রান্ত – ১০৯

সুস্থ হলেন – ৭৯

১৪) বাঁকুড়া

নতুন করে আক্রান্ত – ১৭৯

সুস্থ হলেন – ৯৩

১৫) পুরুলিয়া

নতুন করে আক্রান্ত – ১০

সুস্থ হলেন – ২৫

১৬) পূর্ব মেদিনীপুর

নতুন করে আক্রান্ত – ৪৭৬

সুস্থ হলেন – ৩৩৯

১৭) পশ্চিম মেদিনীপুর

নতুন করে আক্রান্ত – ৩০৪

সুস্থ হলেন – ২০৯

১৮) ঝাড়গ্রাম

নতুন করে আক্রান্ত – ৯৩

সুস্থ হলেন – ৪৪

১৯) দক্ষিণ ২৪ পরগণা

নতুন করে আক্রান্ত – ৩১৬

সুস্থ হলেন – ২৮৬

২০) হুগলি

নতুন করে আক্রান্ত – ৩৩৪

সুস্থ হলেন – ৩১৩

২১) হাওড়া

নতুন করে আক্রান্ত – ৩২৪

সুস্থ হলেন – ৩৪৯

- Advertisement -

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

- Advertisement -

আপডেট

পড়তে পারেন