স্টেডিয়ামের মাঠে সভা করা কি ঠিক? মুখ্যমন্ত্রীর সভাস্থল নিয়ে চাপা ক্ষোভ

প্রতীকী ছবি

রায়গঞ্জ: স্টেডিয়ামের মাঠে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্বাচনী জনসভা করা নিয়ে চাপা ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে রায়গঞ্জে।

দলীয় প্রার্থী কানাইয়ালাল আগরওয়ালের সমর্থনে মঙ্গলবার সভা করবেন মুখ্যমন্ত্রী। সেই কারণে রায়গঞ্জ স্টেডিয়ামের গোটা মাঠ খুঁড়ে ফেলা হয়েছে। সভা আয়োজন করার জন্য যত্রতত্র খুঁটি পোতা হয়েছে।

সভামঞ্চ তো রয়েছেই, আবার এক দিকে হেলিপ্যাডও তৈরি করা হয়েছে। এর জন্য মাঠ জুড়েই গর্ত খুঁড়ে শতাধিক শাল গাছের খুঁটি বসানো হয়েছে। মাঠে সভার আয়োজনের জন্য বড়ো বড়ো গাড়ি ঢোকায় চাকার দাগ বসে গিয়েছে পিচের উপরে। ফলে ক্রিকেট খেলার পিচটিও নষ্ট হয়ে পড়েছে। তাতে ক্ষুব্ধ ক্রীড়াপ্রেমীদের একাংশ।

আরও পড়ুন ক’টা আসন জিতবে বিজেপি, নাগরাকাটার সভা থেকে ফের ভবিষ্যদ্বাণী মুখ্যমন্ত্রীর

বছরভর জেলাক্রীড়া সংস্থাই মাঠের দেখভাল করেন। জেলা ক্রীড়া সংস্থার সচিব সুদীপ বিশ্বাস বলেন, ‘‘স্টেডিয়াম কমিটিই পুরো বিষয়টি দেখছেন। তারাই যা বলার বলবেন।’’ মহকুমাশাসক তথা স্টেডিয়াম কমিটির সম্পাদক রজত কান্তি বিশ্বাস বলেন, ‘‘নির্বাচন কমিশনের তথা সরকারের অনুমতি নিয়েই ওই সভা করা হচ্ছে। মাঠের কোনো ক্ষতি হলে তা আবার আগের অবস্থায় ফিরিয়ে দেওয়া হবে।’’

ক্রীড়াপ্রেমীরা তো বটেই, এই ভাবে কোনো খেলার জায়গাকে নষ্ট করে সভা আয়োজনের ব্যাপারে রাজি নয় বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলিও।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.