ববিতা সরকার, অঙ্কিতা অধিকারী। প্রতীকী ছবি

কলকাতা: অবৈধ ভাবে স্কুল শিক্ষিকার চাকরি পেয়েছিলেন মন্ত্রী পরেশ অধিকারীর কন্যা অঙ্কিতা। হাইকোর্টের নির্দেশে মন্ত্রীকন্যার ফেরানো বেতনের টাকার প্রথম কিস্তি পেলেন মামলায় জয়ী ববিতা সরকার।

প্রথম কিস্তি বাবদ ১ হাজার ৮৭ টাকা সুদ-সহ ৭ লক্ষ ৯৮ হাজার ২৯৯ টাকা পেলেন ববিতা। দ্বিতীয় কিস্তির টাকাও হাইকোর্টে জমা করেছেন মন্ত্রীকন্যা।

অঙ্কিতার চাকরি বাতিলের পাশাপাশি হাইকোর্ট নির্দেশ দিয়েছিল, ৪৩ মাস ধরে তিনি বেতন বাবদ যে টাকা পেয়েছেন, তা দুই কিস্তিতে জমা করবেন। সেই নির্দেশ অনুযায়ী, প্রথম কিস্তির টাকা গত ৭ জুন হাইকোর্টে জমা করেন অঙ্কিতা। সেই টাকাই এত দিন পর হাতে পেলেন ববিতা। দ্বিতীয় কিস্তির টাকাও হাইকোর্টে জমা করেছেন অঙ্কিতা। বিচারপতি অভিজি‍ত্‍ গঙ্গোপাধ্যায় জানান, দ্বিতীয় কিস্তির প্রায় ৭ লক্ষ টাকা নিয়ে দ্রুত সিদ্ধান্ত জানাবে হাইকোর্ট।

উল্লেখ্য, মেধাতালিকায় নাম না থাকা সত্ত্বেও নিয়োগের ঘটনায় চাকরি হারিয়েছেন অঙ্কিতা। হাইকোর্টের নির্দেশে তাঁর জায়গায় চাকরিতে যোগ দিয়েছেন যোগ্য প্রার্থী ববিতা সরকার।

আরও পড়তে পারেন:

নামল শাস্তির খাঁড়া, পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের মন্ত্রীত্ব কেড়ে নেওয়া হল

মুখ ফসকে দ্রৌপদী মুর্মুকে ‘রাষ্ট্রপত্নী’ বলে বিপাকে অধীর, উত্তাল সংসদ

‘অর্পিতার আবাসনে যেতেন সৌগত রায়’, বিস্ফোরক দাবি দিলীপ ঘোষের, পাল্টা তৃণমূল সাংসদ

অর্পিতার ফ্ল্যাট থেকে নতুন করে টাকা উদ্ধারের পর তৃণমূলের তরফে বিবৃতি দিলেন কুণাল ঘোষ

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন