Bus

কলকাতা: উত্তরোত্তর বেড়েই চলেছে জ্বালানি তেলের দাম। পেট্রোল-ডিজেলের দাম নিয়ন্ত্রণে রাখার জন্য কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারের তরফে একাধিক কর ছাড়ের ব্যবস্থা নেওয়া হলেও ক্রমশ ঊর্ধ্বমুখী দামের সামনে সে সব অপ্রতুল। ফলে সংকটে পড়া বাস ও মিনিবাস মালিকরা ভাড়া বৃদ্ধির দাবিতে আন্দোলনে নামছেন। এই আন্দোলনের ধরন অবশ্য নজিরবিহীন।

বৃহস্পতিবার বেঙ্গল বাস সিন্ডিকেটের তরফে জানানো হয়েছে, আগামী ২৯ অক্টোবর, সোমবার থেকে কলকাতা ও দুই ২৪ পরগনায় চলবে ওই প্রতিবাদ আন্দোলন। ওই দিন সকালে ৮টা থেকে ১১টা এবং বিকেলে ৪টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত চলবে বেসরকারি বাস। তাদের এই আন্দোলন চলবে আগামী ৩১ অক্টোবর, বুধবার পর্যন্ত।

বাস সিন্ডিকেটের ঘোষণা অনুযায়ী, নিত্য অফিসযাত্রীদের যাতে কোনো রকমের অসুবিধা না হয়, সে দিকটিতেই মনোযোগ দিতে চাইছে তারা। তবে দিনের বাকি সময়টাতেও ১০টা-৬টার অফিসযাত্রী ছাড়াও একটা বৃহত্তর অংশের মানুষ কাজের তাগিদে রাস্তায় থাকেন। তাঁরা পড়তে পারেন ব্যাপক সমস্যায়।

উল্লেখ্য, গত জুন মাসে জ্বালানি তেলের দামবৃদ্ধির কারণে ধর্মঘটের ডাক দেয় বাস মালিক সংগঠনগুলি। সে সময় পরিবহণ দফতরের হস্তক্ষেপে ধর্মঘট থেকে পিছু হঠে তারা। রাজ্যের পরিবহণমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারীর সঙ্গে আলোচনা সাপেক্ষে সে বার প্রতি স্তরে বাস এবং মিনিবাসের ভাড়া ১ টাকা করে বাড়ানো হয়। কিন্তু তার পর কেটে গিয়েছে প্রায় চার মাস। এই সময়কালে জ্বালানি তেলের দাম আকাশছোঁয়া। কয়েক দিন ধরেই ফের ভাড়াবৃদ্ধির দাবি জানিয়ে আসছে কয়েকটি বাস সংগঠন।

বেঙ্গল বাস সিন্ডিকেটের তরফে জানানো হয়েছে, আগামী বৃহস্পতিবার সংগঠনের ব্যানারে মিছিলের আয়োজন করা হবে কলকাতার ধর্মতলায়।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here