Bengal Polls 2021: ‘নীল বাড়ি’ দখল করতে পারলে ‘লাল বাড়িতে’ বসবে বিজেপি!

0

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ‘নীল বাড়ির’ লড়াই জিততে পারলে ‘লাল বাড়িতে’ সচিবালয় ফিরিয়ে আনবে বিজেপি। অর্থাৎ, নবান্ন থেকে রাজ্য সরকারের কর্মকাণ্ডের পীঠস্থান ফের রাইটার্স বিল্ডিংয়ে ফিরিয়ে আনা হবে। সাংবাদিক সম্মেলনে এমনটাই জানালেন রাজ্য বিজেপির মুখপাত্র শমীক ভট্টাচার্য।

শমীক জানিয়েছেন, “রাইটার্স বিল্ডিংকে ঘিরে মানুষের আবেগ আছে। এই ভবনের ঐতিহ্য বহুদিনের। বিনয় বাদল দীনেশ মার্গের এই ভবন থেকেই বাংলায় শাসনব্যবস্থা ঐতিহাসিকভাবে চলে আসছে। তাই বিজেপি এলে মহাকরণেই ফিরবে সচিবালয়।”

রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা মনে করছেন, বাঙালির মন ছোঁয়ার কৌশল হিসেবে এই ঘোষণা করা হয়েছে বিজেপির তরফে। নির্বাচনী প্রচারে বিজেপিকে বার বার বাঙালি বিরোধী হিসেবে তোপ দেগে আসছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তথা তৃণমূল। সেই অভিযোগকে ভোঁতা করে দেওয়ার জন্যই বিজেপি এই কৌশল নিয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে।

মহাকরণের ওই লালবাড়ির প্রতি বাংলার মানুষের যে একটা আবেগ আছে, সেটাই কাজে লাগাতে চাইছে গেরুয়া শিবির। ঐতিহাসিকভাবেও এই রাইটার্সের আলাদা গুরুত্ব আছে। স্বাধীনতা সংগ্রামের সঙ্গে অঙ্গাঅঙ্গিভাবে জড়িত লালবাড়িটি। গেরুয়া শিবিরের দাবি, নবান্নের ১৪ তলা থেকে মমতা (Mamata Banerjee) স্বৈরাচারী শাসন চালান।

২০১১ সালে ক্ষমতায় আসার পর প্রথমে মমতাও মহাকরণে থেকেই রাজ্য চালাতেন। ২০১৩ সালে তিনি রাজ্য প্রশাসনের সদর দফতর সরান নবান্নে (Nabanna)। তখন বলা হয়, রাইটার্স বিল্ডিংটি ভগ্নপ্রায়। এর অনেক মেরামতি প্রয়োজন। তাই অস্থায়ীভাবে সচিবালয় সরানো হচ্ছে নীলবাড়িতে।

রাইটার্সের মেরামতির পর সেখানেই মুখ্যমন্ত্রী ফিরবেন বলে জানানো হয়। কিন্তু গত ৮ বছরে আর মহাকরণ মুখো হননি মমতা। মহাকরণে সরকারি কাজকর্মও এখন আগের থেকে অনেকটাই কমে গিয়েছে। চিরাচরিত সেই গমগমে ব্যাপারটাও উধাও। সন্ধ্যা বাড়লেই কার্যত নিঝুম হয়ে যায় ওই এলাকা।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন