ফাইল ছবি

দার্জিলিং: “পাহাড়ের মানুষকে বোকা বানিয়ে জিটিএতে ঢুকতে চাইছেন বিমল গুরুং।” এ ভাবেই প্রাক্তন মোর্চা প্রধানের বিরুদ্ধে তীব্র তোপ দাগলেন বর্তমান প্রধান বিনয় তামাং।

উল্লেখ্য, দিন কয়েক আগেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে আলোচনার প্রস্তাব দিয়েছে গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার বিমন গুরুং-গোষ্ঠী। এতে তাদের দ্বিচারিতাই প্রমাণিত হচ্ছে বলে দাবি করেন বিনয় তামাং।

গত বছর জুন থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত অচলাবস্থা তৈরি হয়েছিল পাহাড়ে। পৃথক গোর্খাল্যান্ডের দাবিকে কেন্দ্র করে অগ্নিগর্ভ হয়ে ওঠে পাহাড়। এই আন্দোলনের নেতৃত্বে ছিলেন গুরুং। তাঁর বিরুদ্ধে সরকারি সম্পত্তি নষ্ট-সহ একাধিক অভিযোগে মামলা দায়ের হয়। এরপর অক্টোবরে পশ্চিমবঙ্গ পুলিশের এক এএসআই খুনের ঘটনাতেও নাম জড়ায় গুরুং-এর। এরপর থেকেই লোকচক্ষুর আড়ালে চলে যান গুরুং। ধীরে ধীরে মোর্চার রাশও গুরুং-এর হাত থেকে তামাং-এর হাতে চলে আসে। মনে করা হচ্ছে, গ্রেফতারি থেকে রেহাই পাওয়ার জন্যই রাজ্য সরকারের কাছে আলোচনার প্রস্তাব দিয়েছেন গুরুং।

আরও পড়ুন হঠাৎ অবস্থান বদল, মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনার আর্জি গুরুংদের

এই পরিপ্রেক্ষিতে তীব্র প্রতিক্রিয়া দেখা গিয়েছে তামাংগোষ্ঠীর অন্দরে। মোর্চার বর্তমান মুখপাত্র সুরজ শর্মা বলেন, “গুরুংরা যখন আলোচনাতেই বসতে চাইছিলেন, তো বিনয় তামাং, অনিত থাপাদের গোর্খাল্যান্ড বিরোধী বলা হল কেন? পাহাড়ে অচলাবস্থা কাটাতেই তো আলোচনায় রাজি হয়েছিলেন তামাং, থাপারা।”

অতীতেও গোর্খাল্যান্ডের দাবি তুলে পরে সেই দাবি থেকে গুরুং সরে এসেছেন, এমনও অভিযোগ করেন শর্মা।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here