purulia

শুভদীপ চৌধুরী, পুরুলিয়া: পুরুলিয়া জেলার কেন্দা থানার অন্তর্গত টুড়ুহুলু গ্রামে গ্রাম্য বিবাদের জেরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে দুই পরিবারের মারামারিতে মৃত্যু হল বাবা ও ছেলের । ঘটনায় গুরুতর আহত হয়ে চিকিৎসাধীন আরও চার জন। এমনটাই দাবি এলাকার বাসিন্দা ও পুলিশের।

সূত্রের খবর, মৃতরা হলেন লালমোহন মাহাত (৫৪) ও তাঁর ছেলে দীপক মাহাত (৩২) । অপর দিকে আহত চারজন হলেন বিরিঞ্চি মাহাতো (৪৫), গুরুপদ মাহাতো (৪৭), রামকৃষ্ণ মাহাতো (১৮) ও অঞ্জনা মাহাতো (৬০)।

যদিও পুরুলিয়া জেলা বিজেপি সভাপতি বিদ্যাসাগর চক্রবর্তী প্রথম থেকেই বলেন, “নিহত লালমোহন মাহাতো ও দীপক মাহাতো ছিলেন বিজেপি ওবিসি মোর্চার কার্যকর্তা । দীর্ঘদিন ধরে লালমোহনবাবুর চাষের বীজ চুরি করে চলেছিল অন্য পরিবারটি এবং সেই বীজ চুরির প্রতিবাদ করতে গেলে চড়াও হয় তৃণমূলে কর্মরত ওই বিরোধী পরিবারটি । এর পরে লালমোহনের পরিবারের ওপর ধারালো অস্ত্রের কোপ বসায় তৃণমূলের ওই দুষ্কৃতী পরিবারটি “।

জেলা তৃণমূলের যুব সভাপতি সুশান্ত মাহাতো ও জেলা তৃণমূল সম্পাদক নব‍্যেন্দু মহালি জানান, বিজেপির অভিযোগ ভিত্তিহীন । এ দিন নিহতদের পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে যান জেলা অনগ্রসর শ্রেণিকল্যাণ দফতরের মন্ত্রী সন্ধ্যারাণী টুডু-সহ জেলা তৃণমূল যুব সভাপতি সুশান্ত মাহাতো ও জেলা তৃণমূল সম্পাদক নব‍্যেন্দু মহালি ।

অন্যদিকে জেলা পুলিশ সুপার আকাশ মাঘারিয়া বুধবার রাত্রেই এক সাংবাদিক সম্মেলন ডেকে জানিয়ে দেন, “ঘটনাটি পুরোপুরি পারিবারিক বিবাদের জেরেই ঘটেছে । এতে কোনোরকম রাজনৈতিক রং চাপানো হলেও তা সত্য নয়” ।

উল্লেখ্য, আগামী শুক্রবার থেকে এই মৃত্যুর ঘটনাকে ঘিরে শুরু হতে চলেছে বিজেপির লাগাতার কর্মসূচি । ওই দিন পুরুলিয়া জেলার প্রত্যেক মণ্ডলে রাস্তা অবরোধ-সহ আগামী ১৯ জুলাই এসপি অফিস ঘেরাও ও ২৫ জুলাই জেলার সমস্ত থানা ঘেরাও করবেন জেলা বিজেপি নেতৃত্ব ।

পুলিশ ঘটনার তদন্ত চালাচ্ছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here