Sayantan Basu and donald Trump

সমীর মাহাত, ঝাড়গ্রাম: এ বারের লোকসভা ভোটে উত্তর ২৪ পরগনার বসিরহাট কেন্দ্রের বিজেপি প্রার্থী সায়ন্তন বসু প্রচারে এসেছিলেন ঝাড়গ্রামে। এখানে এসে তিনি ঝাড়গ্রামে বিজেপি প্রার্থীর সমর্থনে প্রচারে অংশ নেন। মিছিলে কর্মী-সমর্থকদের আগ্রহ-উত্তেজনা দেখে মন্তব্য করেন, ২৩ মে দেখা যাবে ঝাড়গ্রামে তৃণমূল কংগ্রেস তৃতীয় স্থানে চলে গিয়েছে।

তিনি বলেন, “এই কেন্দ্রে তৃণমূল তৃতীয় স্থানে চলে যাবে। গত পঞ্চায়েত নির্বাচনে মানুষকে ভোট দিতে বাধার সৃষ্টি করা হয়েছে, বিজেপি প্রার্থীদের মনোনয়ন আটকে দেওয়া হয়েছে। তার পরেও আশাপ্রদ ফল করেছি আমরা। ভোট গণনার সময় আলো নিভিয়ে দেওয়া না হলে জেলা পরিষদ আমরাই দখল করতাম। ফলে লোকসভা ভোটে এক নম্বরে থাকবে বিজেপি। তৃণমূল চলে যাবে তৃতীয় স্থানে। বাকিরা লড়াই করবে দুই নম্বর জায়গার জন্য”।

তাঁকে প্রশ্ন করা হয়, রাজ্যের শাসক দলের একাংশের তরফে দাবি করা হচ্ছে, লোকসভায় প্রয়োজনীয় আসন পাবেন না নরেন্দ্র মোদী। ফলে প্রধানমন্ত্রী হবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়? এমন বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে সায়ন্তন কটাক্ষের সুরে বলেন, “অনেকে ভারতের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার স্বপ্ন দেখছেন।আমরাও অনেকেই আমেরিকার রাষ্ট্রপতি হওয়ার স্বপ্ন দেখি”।

[ আরও পড়ুন: প্রার্থী হিসাবে নুসরত জাহানকে দরাজ সার্টিফিকেট সায়ন্তন বসুর! ]

সায়ন্তনের এই মন্তব্যের পর তৃণমূলের এক জেলা নেতা বলেন, “আমেরিকার রাষ্ট্রপতি হতে গেলে প্রয়োজনীয় যোগ্যতা কী কী প্রয়োজন তা কি ওঁর (সায়ন্তনের) জানা আছে? কিন্তু আমাদের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের ভারতের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার সমস্ত রকমের যোগ্যতাই আছে”।

[ আরও পডুন: পাকিস্তানে বাস থেকে নামিয়ে ১৪ জনকে গুলি করে মারল জঙ্গিরা ]

জেলা তৃণমূলের চেয়ারম্যান সুকুমার হাঁসদা বলেন, “এরা নানা ভাবে বিভ্রান্তি ছড়াতে চাইছে। দেখলেন তো গতকাল যাঁরা ঠিকমতো মনোনয়নপত্র জমা দিতে পারেননি, তাঁরাই বলছেন ভোটে জিতবেন। ভোটের আগে এ রকম নানা বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে”।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here