nusrat jahan and mimi chakraborty
নুসরত জাহান এবং মিমি চক্রবর্তী। ফাইল ছবি

ওয়েবডেস্ক: গত মঙ্গলবার এ বারের লোকসভা নির্বাচনের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ করেছে তৃণমূল। সাম্প্রতিক কালের অন্যান্য ভোটের মতোই ওই প্রার্থী তালিকায় উঠে এসেছে তারকা-মুখ। এ বারে তৃণমূলের নতুন সংযোজন অভিনেত্রী মিমি চক্রবর্তী এবং নুসরত জাহান। বিজেপির আস্তিনেও রয়েছে তাঁদের বিরুদ্ধে প্রতিদ্বন্দ্বিতার জন্য তারকা প্রার্থী।

এ বার আর যাদবপুর থেকে প্রার্থী হচ্ছেন না গতবারের জয়ী তৃণমূল সাংসদ সুগত বসু। সেই জায়গায় নিয়ে আসা হয়েছে মিমিকে।

রাজনীতিতে আনকোরা হলেও নাম ঘোষণার পরই মিমি নেমে পড়েছেন ভোটের প্রচারে। রাজ্যের শাসক দলের প্রার্থী হওয়ায় তিনি জয়ের বিষয়েও আত্মবিশ্বাসী।

অন্য দিকে বসিরহাট কেন্দ্র থেকে প্রার্থী করা হয়েছে আর এক অভিনেত্রী এবং রাজনীতিতে নবাগতা নুসরতকে। সাংসদ ইদ্রিশ আলিকে বিধানসভা উপনির্বাচনে প্রার্থী করার জন্য এই নুসরতের অন্তর্ভুক্তি বলে জানা গিয়েছে।

এখনও পর্যন্ত বিজেপির প্রার্থী তালিকা প্রকাশ না-হলেও জানা গিয়েছে, মিমির বিরুদ্ধে পদ্ম-প্রতীকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে দেখা গেলেও যেতে পারে রাজ্যসভার সাংসদ অভিনেত্রী রূপা গঙ্গোপাধ্যায়কে।

 

অন্য দিকে বীরভূমে তৃণমূল প্রার্থী শতাব্দী রায়ের বিরুদ্ধে প্রার্থী হতে পারেন বিজেপি নেত্রী লকেট চট্টোপাধ্যায়। গত বিধানসভা ভোটে ময়ূরেশ্বরের প্রার্থী লকেটকে দিয়ে লোকসভায় বাজি হিসাবে ধরতে পারে বিজেপি।

যদিও বিজেপির প্রার্থী তালিকা ঘোষণা না হওয়া পর্যন্ত পুরো বিষয়টা স্পষ্ট হওয়ার নয়!

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here