Connect with us

রাজ্য

মহেশতলায় ‘ম্যাজিক’ দেখাল বিজেপি, ভাবাচ্ছে তৃণমূলকেও!

কলকাতা: মহেশতলা বিধানসভার উপনির্বাচনের ফলাফল ঘোষণার পরই সাংবাদিক সম্মেলনে দলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায় স্পষ্ট করে দিলেন, বর্তমানে বিজেপি-ই তৃণমূলের মূল প্রতিপক্ষ। তৃণমূল ভবনে বসে ওই সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি বলেন, মহেশতলার ভোট, সাম্প্রদায়িক শক্তির বিরুদ্ধে জয়। তবে পার্থবাবুর নিশানায় যে কারণে বিজেপি, তার সুর্নিদিষ্ট কারণও রয়েছে। ওই কেন্দ্রের ফলাফলে স্পষ্ট হয়ে ধরা পড়েছে বিজেপির ভোটবৃদ্ধির দ্রুতহার। […]

Published

on

কলকাতা: মহেশতলা বিধানসভার উপনির্বাচনের ফলাফল ঘোষণার পরই সাংবাদিক সম্মেলনে দলের মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায় স্পষ্ট করে দিলেন, বর্তমানে বিজেপি-ই তৃণমূলের মূল প্রতিপক্ষ। তৃণমূল ভবনে বসে ওই সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি বলেন, মহেশতলার ভোট, সাম্প্রদায়িক শক্তির বিরুদ্ধে জয়।

তবে পার্থবাবুর নিশানায় যে কারণে বিজেপি, তার সুর্নিদিষ্ট কারণও রয়েছে। ওই কেন্দ্রের ফলাফলে স্পষ্ট হয়ে ধরা পড়েছে বিজেপির ভোটবৃদ্ধির দ্রুতহার। কংগ্রেস এবং বামফ্রন্টের ভোট কমেছে, তা যেমন বাস্তব উল্টো দিকে তৃণমূলের ভোট বাড়ার পাশাপাশি ভোট বেড়েছে বিজেপিরও। এখনও পর্যন্ত যা হিসাব মিলেছে তাতে দেখা গিয়েছে তৃমমূল কংগ্রেস প্রার্থী দুলাল দাস পেয়েছেন,১০৪২০৬ টি ভোট। বিজেপি প্রার্থী সুজিত ঘোষ এবং সিপিএম প্রার্থী প্রভাত চৌধুরী যথাক্রমে পেয়েছেন ৪১৮৮২ এবং ৩০১৮০টি ভোট। প্রাথমিক ভাবে এই পরিসংখ্যান থেকে দেখা গিয়েছে, এই উপনির্বাচনে বিজেপির প্রাপ্ত ভোটের পরিমাণ ২০ শতাংশের উপর। অথচ মাত্র বছর দুয়েক আগে, ২০১৬-র বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি পেয়েছিল ৭.৭ শতাংশ ভোট।

উল্লেখ্য, বাম-কংগ্রেস জোটের ভোট কমেছে প্রায় ২৫ শতাংশ। অন্য দিকে বিজেপির ভোট বেড়েছে ১৬ শতাংশ।

এই স্বল্প সময়ের মধ্যেই বিজেপি সাফল্যে যথেষ্ট উচ্ছ্বসিত বিজেপি নেতৃত্ব। দলের এক রাজ্য নেতা বলেন, “সদ্য শেষ হওয়া পঞ্চায়েত নির্বাচনের ফলেও দেখা গেছে বিজেপি-ই এখন রাজ্যের প্রধান বিরোধী দল। আবার মহেশতলার উপনির্বাচনেও সে কথা প্রমাণিত হল। প্রায় তিনগুণ ভোট বেড়েছে আমাদের। এই ভোট যে শুধু সিপিএম-কংগ্রেস থেকে এসেছে তা নয়। শাসক দলের যতই ভোটের ব্যবধান বাড়ুক সরকারের বিপক্ষে পড়া ভোট কিন্তু প্রধান বিরোধী দল হিসাবে বিজেপি পেয়েছে। এটাই গণতন্ত্রের ম্যাজিক”।

এ দিন সাংবাদিক সম্মেলনে পার্থবাবু দাবি করেন, “বিরোধীরা যতই জোটঘোঁট করুক, ওদের কোনো জনভিত্তি নেই। বাহিনী নয়, বাংলার মানুষকে নিয়ে ভোট করতে হয়। আসলে নির্বাচনকেই ভয় পায় বিরোধীরা। মমতার উন্নয়নে আবার আস্থা দেখিয়েছে জনগণ। মহেশতলার ভোট, সাম্প্রদায়িক শক্তির বিরুদ্ধে জয়। ভোট হলেও বিরোধীদের হার, ভোট না হলেও যে বিরোধীদের হার, সে কথাই প্রমাণ হয়ে গেল। আসলে কেন্দ্রীয় বাহিনী কোনো বিষয় নয়, জনগণই সব”।

রাজ্য

আজও ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা বেশ কয়েকটি জেলায়

উত্তর-পূর্ব বঙ্গোপসাগরের দিক থেকে নিম্নচাপটি সোমবার ওড়িশা উপকূল সংলগ্ন অঞ্চলে চলে এসেছে।

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক: মঙ্গলবার রাজ্যের কয়েকটি জেলায় ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া দফতর। উত্তর থেকে দক্ষিণ- রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় এ দিন ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

আবহাওয়া দফতরের পূর্বাভাস অনুযায়ী, দার্জিলিং, কালিম্পং, জলপাইগুড়ি, আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার জেলায় ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। জেলাগুলিতে কমলা সতর্কতা জারি করেছে দফতর। অন্য দিকে পশ্চিম বর্ধমান, বীরভূম, নদীয়া ও মুর্শিদাবাদেও ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে। তবে উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগরে তৈরি হওয়া নিম্নচাপের প্রভাব সব থেকে বেশি পড়তে পারে হিমালয় সংলগ্ন জেলাগুলিতে।

ইতিমধ্যে আগামী শুক্রবার পর্যন্ত বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া দফতর। এর মধ্যে মঙ্গলবার এবং বুধবারই সব থেকে বেশি বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

আবহাওয়া দফতরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় পশ্চিম মেদিনীপুরে স্বাভাবিকের থেকে ৫৭ শতাংশ, পূর্ব মেদিনীপুরে ৪৪ শতাংশ ও দক্ষিণ ২৪ পরগনায় ১১ শতাংশ বেশি বৃষ্টিপাত হয়েছে। অন্যদিকে, জলপাইগুড়ি, কোচবিহার ও মালদহ জেলায় এই সময়ে স্বাভাবিকের থেকে বেশি বৃষ্টি হয়েছে। ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম বর্ধমান, পূর্ব বর্ধমান, বাঁকুড়া, বীরভূম, মুর্শিদাবাদ জেলা থেকেও বৃষ্টির খবর পাওয়া গিয়েছে। কলকাতা ও সংলগ্ন এলাকায় হালকা ও মাঝারি মাত্রায় বৃষ্টি হয়েছে। তবে উপকূল এলাকায় বৃষ্টির মাত্রা তুলনায় বেশি হয়েছে।

এর আগে হাওয়া অফিস জানিয়েছিল, রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় ২৩ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত হলুদ সতর্কতা জারি করেছে। দক্ষিণের তুলনায় উত্তরবঙ্গে বেশি বৃষ্টি হতে পারে। নদীগুলির জলস্তর বৃদ্ধির পাশাপাশি আশঙ্কা রয়েছে দার্জিলিং এবং কালিম্পঙের পার্বত্য এলাকায় ধস নামার।

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট নিম্নচাপের কারণেই রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। তবে দার্জিলিং, আলিপুরদুয়ার ও কালিম্পং জেলা প্রশাসনকে পৃথক ভাবে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে। রবিবার থেকে এই জেলাগুলিতে বৃষ্টি শুরু হয়ে যাবে। পরের দিন তা আরও বাড়তে পারে। অন্য দিকে মালদহ, দুই দিনাজপুরেও বৃষ্টি হবে।

সোমবার রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি হয়। তবে প্রায় সারা দিনই আকাশের মুখ ভার হয়েছিল। মঙ্গলবার সকাল থেকেও মুখ গোমড়া করে রয়েছে আকাশ। উত্তর-পূর্ব বঙ্গোপসাগরের দিক থেকে নিম্নচাপটি সোমবার ওড়িশা উপকূল সংলগ্ন অঞ্চলে চলে এসেছে। আগামী দু’-তিনদিন যা ক্রমশ উত্তর-পশ্চিম অভিমুখে এগিয়ে যাবে।

আরও পড়তে পারেন: আইপিএলের অভিষেকেই চমক দিলেন দেবদত্ত পাড়িক্কাল, ঝড় তুললেন এবি

আবহাওয়া দফতর আরও জানিয়েছে, আগামী দু’-তিন দিনে বঙ্গোপসাগরে সৃষ্টি হওয়া নিম্নচাপ রেখা আরও পশ্চিম ও উত্তর-পশ্চিম অভিমুখে সরে যাবে। এর জেরে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ, ওডিশার উপকূলবর্তী অঞ্চল, ঝাড়খণ্ড এবং বিহারের একাংশে ভারী বৃষ্টির আশঙ্কা থাকবে। অন্য দিকে অন্ধ্র প্রদেশ, ইয়ানাম, রায়লসীমা ও তেলেঙ্গানার কয়েকটি অংশে বৃষ্টির সম্ভাবনা থাকছে।

Continue Reading

রাজ্য

রাজ্যে কমছে নতুন সংক্রমণ, বাড়ছে সুস্থতা, চিন্তায় রাখছে মৃতের সংখ্যা

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে ৪৩,৩১৩টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে।

Published

on

coronavirus west bengal
সুস্থতার হার ৮৭.১৬ শতাংশ।

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রাজ্যে করোনা সংক্রমণ আরও কিছুটা কমল। অন্য দিকে বেশ কয়েক দিন পর রাজ্যে সুস্থ হলেন তিন হাজারের বেশি মানুষ। কিন্তু রাজ্যে এখন উদ্বেগের কারণ হয়েছে মৃতের সংখ্যাটি। সোমবারও রাজ্যে মৃত্যু হয়েছে ৬০-এর বেশি মানুষের। যদিও মৃত্যুহার এখনও কম রয়েছে।

রাজ্যের কোভিড-তথ্য

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে কোভিডে (Covid 19) আক্রান্ত হয়েছেন ৩,১৬৫ জন। এর ফলে রাজ্যে এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ২ লক্ষ ২৮ হাজার ৩০২। গত ২৪ ঘণ্টায় ৬২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর ফলে রাজ্যে এখন মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৪,৪২১। রাজ্যে মৃত্যুহার বর্তমানে রয়েছে ১.৯৩ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে সুস্থ হয়েছেন ৩,০১১ জন। এর ফলে এখনও পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১ লক্ষ ৯৮ হাজার ৯৮৩ জন। রাজ্যে বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ২৪,৮৯৮। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে সক্রিয় রোগী বেড়েছে ৯২ জন। রাজ্যে সুস্থতার হার আরও কিছুটা বেড়ে ৮৭.১৬ শতাংশ হয়েছে।

সংক্রমণের হার আরও একটু কমেছে

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে ৪৩,৩১৩টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। রাজ্যে মোট ২৮ লক্ষ ৩৩ হাজার ৮৩১টি নমুনা পরীক্ষা হল। রাজ্যে বর্তমানে প্রতি দশ লক্ষ মানুষে ৩১,৪৮৭ জনের করোনা পরীক্ষা হচ্ছে।

প্রতি দিন যে সংখ্যক মানুষের পরীক্ষা হচ্ছে, তার মধ্যে যত শতাংশের কোভিড রিপোর্ট পজিটিভ আসছে, সেটাকে বলা হচ্ছে ‘পজিটিভিটি রেট’ বা সংক্রমণের হার। সোমবার রাজ্যে দৈনিক সংক্রমণের হার ছিল ৭.৩ শতাংশ।

দৈনিক সংক্রমণের হারটা কিছুটা বাড়লেও রাজ্যে সামগ্রিক সংক্রমণের হার আরও কিছুটা কমে ৮.০৬ শতাংশ হয়েছে।

কলকাতায় কমল সক্রিয় রোগীর সংখ্যা

কলকাতায় নতুন আক্রান্তের সংখ্যা পাঁচশো অতিক্রম করলেও সক্রিয় রোগীর সংখ্যা কিছুটা কমেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় কলকাতায় আক্রান্ত হয়েছেন ৫২৮ জন। অন্য দিকে সুস্থ হয়েছেন ৬২৯ জন। মৃত্যু হয়েছে ১৯ জনের।

শহরে মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৫০,৬৫৫। সুস্থ হয়ে গিয়েছেন ৪৪,৯১৩ জন। শহরে মোট মৃতের সংখ্যা ১,৬০০। বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৪,১৪২।

হাওড়ায় সংক্রমিত দুশোর বেশি

কলকাতার পড়শি জেলাগুলির মধ্যে সোমবার হাওড়ায় নতুন আক্রান্তের সংখ্যা দুশো অতিক্রম করেছে। বেশ কয়েকদিন পর হাওড়ায় এক দিনে এত সংখ্যক মানুষ কোভিডে আক্রান্ত হলেন।

যদিও, এ দিনও আক্রান্তের নিরিখে সবার ওপরে থাকল উত্তর ২৪ পরগণাই। এই জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ৫১৫ জন। সুস্থ হয়ে ছাড়া পেয়েছেন ৪৬৪ জন। অন্য দিকে দক্ষিণ ২৪ পরগণায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৯০ জন, ছাড়া পেয়েছেন ১৩৩ জন।

হাওড়ায় ২১০ জন নতুন করে কোভিডে আক্রান্ত হয়েছেন আর সুস্থ হয়েছেন ১৬৬ জন। অন্য দিকে হুগলিতে ১৩৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন আর ছাড়া পেয়েছেন ২৭২ জন।

পশ্চিম মেদিনীপুরে কিছুটা স্বস্তি, চিন্তা বাড়াল বাঁকুড়া, দার্জিলিং

পশ্চিম মেদিনীপুরে কোভিড-আক্রান্তের সংখ্যার ঊর্ধ্বগামী যাত্রা কিছুটা স্তিমিত হয়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় এই জেলায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৪৬ জন। তবে এ দিন চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে বাঁকুড়া আর দার্জিলিং।

গত ২৪ ঘণ্টায় বাঁকুড়ায় ১৪৮ আর দার্জিলিংয়ে ১২৮ জন কোভিডে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন। বাঁকুড়ার আরও বেশি চিন্তার কারণ এই জেলায় আরও ৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। ফলে বাঁকুড়ায় এখন কোভিডে মোট মৃতের সংখ্যা ৪৩।

এ ছাড়া এ দিন নতুন করে শতাধিক আক্রান্তের সন্ধান মিলল পূর্ব মেদিনীপুর (১৭০), পশ্চিম বর্ধমান (১১৯) আর নদিয়া (১১১)।

সক্রিয় রোগী কমাল যে যে জেলা

গত ২৪ ঘণ্টায় কলকাতা ছাড়াও সক্রিয় রোগীর সংখ্যা কমেছে দার্জিলিং, জলপাইগুড়ি, দক্ষিণ দিনাজপুর, বীরভূম, ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম মেদিনীপুর আর হুগলি।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

পুজোর সময়ে নেট পরীক্ষা হবে না, জানালেন দীনেশ ত্রিবেদী

Continue Reading

রাজ্য

পুজোর সময়ে নেট পরীক্ষা হবে না, জানালেন দীনেশ ত্রিবেদী

যে পুজোর জন্য বাঙালিরা বছরভর অপেক্ষা করে থাকেন, সেই সময়েই পরীক্ষার দিনক্ষণ কেন ঠিক করা হল, সেই প্রশ্ন তুলে বিরোধীরা কেন্দ্রের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ শুরু করেছিলেন

Published

on

net exam 2020

খবরঅনলাইন ডেস্ক: দুর্গাপুজোর সময়ে রাজ্যে ‘নেট’ (UGC NET) পরীক্ষা হবে না। কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রী রমেশ পোখরিয়াল নিশঙ্ক তাঁকে এমনই আশ্বাস দিয়েছেন বলেন সোমবার জানিয়েছেন তৃণমূল সাংসদ দীনেশ ত্রিবেদী। যদিও এখনও পর্যন্ত কেন্দ্রের তরফে এ ব্যাপারে নতুন কোনো নির্দেশিকা জারি করা হয়নি।

আগামী ২১, ২২ এবং ২৩ অক্টোবর ‘নেট’ হওয়ার কথা। কিন্তু, বিশুদ্ধ সিদ্ধান্ত মতে ২১ তারিখ ষষ্ঠী। ২২ তারিখ সপ্তমী এবং ২৩ তারিখ অষ্টমী।

বাঙালির সংস্কৃতি ও ভাবাবেগের সঙ্গে দুর্গাপুজো ওতপ্রোত ভাবে জড়িত। যে পুজোর জন্য বাঙালিরা বছরভর অপেক্ষা করে থাকেন, সেই সময়েই পরীক্ষার দিনক্ষণ কেন ঠিক করা হল, সেই প্রশ্ন তুলে বিরোধীরা কেন্দ্রের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ শুরু করেছিলেন। সেই প্রতিবাদের সামনের সারিতে ছিল রাজ্যের শাসক তৃণমূল।

রবিবার সংসদের অধিবেশনের জিরো আওয়ারে বিষয়টি উত্থাপন করেছিলেন দীনেশ। তিনি রাজ্যসভায় বলেন, “বাঙালি জীবনের সব চেয়ে বড়ো উৎসব দুর্গাপুজো। সেই সময় পরীক্ষার দিনক্ষণ পড়লে তা পরীক্ষার্থী তো বটেই, সাধারণ নাগরিকরাও অসুবিধায় পড়বে।” কেন্দ্র যাতে বিষয়টি নিয়ে পুনরায় ভাবে, এই আবেদনও করেন দীনেশ।

সোমবার দীনেশ জানান, কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রী তাঁকে আশ্বাস দিয়েছেন যে, পুজোর সময় ‘নেট’ হবে না। আনন্দবাজার পত্রিকাকে দীনেশ এ দিন বলেন, “কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকরের উপস্থিতিতেই আমি কেন্দ্রীয় শিক্ষামন্ত্রীকে জিজ্ঞাসা করেছিলাম, নেট কি সেই দুর্গাপুজোর সময়েই হচ্ছে? তিনি আমাকে আশ্বস্ত করে বলেন, পরীক্ষা পুজোর মধ্যে হবে না।”

তবে পরীক্ষা পুজোয় না হলে, সেটাকে এগিয়ে আনা হয়েছে না কি পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে, সে ব্যাপারে এখনও কিছু খোলসা করেনি কেন্দ্র। কোনো বিবৃতিও জারি করা হয়নি।

খবরঅনলাইনে আরও পড়তে পারেন

তবলিঘির জমায়েত ‘থেকেও’ করোনা ছড়িয়েছে, আক্রান্ত হয়েছেন ‘অনেকে’: সংসদে ব্যাখ্যা কেন্দ্রের

Continue Reading
Advertisement
দেশ2 hours ago

কোভিড আপডেট: নতুন করে আক্রান্ত ৭৫০৮৩, সুস্থ ১০১৪৬৮

দেশ2 days ago

সোমবার থেকে স্কুল খোলা বাধ্যতামূলক নয়, দেখে নিন কোন রাজ্য কী সিদ্ধান্ত নিল

জীবন যেমন3 days ago

মাত্র কয়েক বারেই চুল সিল্কি করার দারুণ ৬টি ঘরোয়া উপায়

দেশ2 days ago

ব্যথার কারণ খুঁজতে হল এক্স-রে, বন্দির মলদ্বারে হদিশ মিলল চারটি মোবাইলের

partha chatterjee
কলকাতা3 days ago

ঐতিহ্যবাহী প্রতিভা গ্রন্থাগারের দ্রুত সংস্কারের প্রতিশ্রুতি দিলেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়

রাজ্য2 days ago

জাতীয় গড়ের তুলনায় রাজ্যে সুস্থতার হার অনেকটাই বেশি, কেন্দ্রের প্রশংসা

sexting
প্রযুক্তি3 days ago

স্মার্টফোনের অ্যাপগুলিতে ৬২ শতাংশ ভারতীয় মহিলার মন মজেছে ‘সেক্সটিং’-এ: সমীক্ষা

mamata banerjee
রাজ্য2 days ago

সোমবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উত্তরবঙ্গ সফর স্থগিত

কেনাকাটা

কেনাকাটা3 days ago

সংসারের খুঁটিনাটি সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে এই জিনিসগুলির তুলনা নেই

খবরঅনলাইন ডেস্ক : নিজের ও ঘরের প্রয়োজনে এমন অনেক কিছুই থাকে যেগুলি না থাকলে প্রতি দিনের জীবনে বেশ কিছু সমস্যার...

কেনাকাটা6 days ago

ঘরের জায়গা বাঁচাতে চান? এই জিনিসগুলি খুবই কাজে লাগবে

খবরঅনলাইন ডেস্ক : ঘরের মধ্যে অল্প জায়গায় সব জিনিস অগোছালো হয়ে থাকে। এই নিয়ে বারে বারেই নিজেদের মধ্যে ঝগড়া লেগে...

কেনাকাটা2 weeks ago

রান্নাঘরের জনপ্রিয় কয়েকটি জরুরি সামগ্রী, আপনার কাছেও আছে তো?

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রান্নাঘরের এমন কিছু সামগ্রী আছে যেগুলি থাকলে কাজ করাও যেমন সহজ হয়ে যায়, তেমন সময়ও অনেক কম খরচ...

কেনাকাটা2 weeks ago

ওজন কমাতে ও রোগ প্রতিরোধশক্তি বাড়াতে গ্রিন টি

খবরঅনলাইন ডেস্ক : ওজন কমাতে, ত্বকের জেল্লা বাড়াতে ও করোনা আবহে যেটি সব থেকে বেশি দরকার সেই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা...

কেনাকাটা2 weeks ago

ইউটিউব চ্যানেল করবেন? এই ৮টি সামগ্রী খুবই কাজের

বহু মানুষকে স্বাবলম্বী করতে ইউটিউব খুব বড়ো একটি প্ল্যাটফর্ম।

কেনাকাটা4 weeks ago

ঘর সাজানোর ও ব্যবহারের জন্য সেরামিকের ১৯টি দারুণ আইটেম, দাম সাধ্যের মধ্যে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: ঘর সাজাতে কার না ভালো লাগে। কিন্তু তার জন্য বাড়ির বাইরে বেরিয়ে এ দোকান সে দোকান ঘুরে উপযুক্ত...

কেনাকাটা4 weeks ago

শোওয়ার ঘরকে আরও আরামদায়ক করবে এই ৮টি সামগ্রী

খবর অনলাইন ডেস্ক : সারা দিনের কাজের পরে ঘুমের জায়গাটা পরিপাটি হলে সকল ক্লান্তি দূর হয়ে যায়। সুন্দর মনোরম পরিবেশে...

kitchen kitchen
কেনাকাটা1 month ago

রান্নাঘরের এই ৮টি জিনিস কাজ অনেক সহজ করে দেবে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আজকাল রান্নাঘরের প্রত্যেকটি কাজ সহজ করার জন্য অনেক উন্নত ব্যবস্থা এসে গিয়েছে। তা হলে ঘণ্টার পর ঘণ্টা কষ্ট...

care care
কেনাকাটা1 month ago

চুল ও ত্বকের বিশেষ যত্নের জন্য ১০০০ টাকার মধ্যে এই জিনিসগুলি ঘরে রাখা খুবই ভালো

খবরঅনলাইন ডেস্ক : পার্লার গিয়ে ত্বকের যত্ন নেওয়ার সময় অনেকেরই নেই। সেই ক্ষেত্রে বাড়িতে ঘরোয়া পদ্ধতি অনেকেই অবলম্বন করেন। বাড়িতে...

কেনাকাটা2 months ago

ঘর ও রান্নাঘরের সরঞ্জাম কিনতে চান? অ্যামাজন প্রাইম ডিলে রয়েছে ৫০% পর্যন্ত ছাড়

খবরঅনলাইন ডেস্ক : অ্যামাজন প্রাইম ডিলে রয়েছে ঘর আর রান্না ঘরের একাধিক সামগ্রিতে প্রচুর ছাড়। এই সেলে পাওয়া যাচ্ছে ওয়াটার...

নজরে