কলকাতা: অখিল গিরির বিতর্কিত মন্তব্য ইস্যুতে সোমবার বিজেপির আনা মুলতুবি প্রস্তাব খারিজ করে দিয়েছিলেন বিধানসভার স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়। আর মঙ্গলবার ডেঙ্গি ইস্যুতে উত্তেজনার পারদ চড়ল বিধানসভায়।

এ দিন ডেঙ্গি নিয়ে বিজেপির প্রস্তাব খারিজ করে দিলেন স্পিকার। তারপর অধিবেশন কক্ষ থেকে বেরিয়ে বাইরে বিক্ষোভ দেখালেন বিজেপি বিধায়করা। পোস্টার হাতে তুললেন অভিযোগ। প্রতীকী মশা, মশারি নিয়ে চলল মিছিল। বিক্ষোভ দেখানোর পাশাপাশি বিধানসভার গেটে মশারিও বিতরণ করে বিজেপি। বিধানসভা চত্বরে তাঁদের বিক্ষোভে পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে ওঠে। ফলে অধিবেশনের দ্বিতীয় দিনও শোরগোল বিধানসভায়।

ডেঙ্গি পরিস্থিতি নিয়ে বিধানসভার অধিবেশনে মুলতুবি প্রস্তাব জমা দেন শিলিগুড়ির বিজেপি বিধায়ক শঙ্কর ঘোষ। তাঁকে প্রস্তাব পাঠের সম্মতি দেন স্পিকার। সেই সঙ্গে ডেঙ্গি নিয়ে বিধানসভায় আলোচনা করতে চান তাঁরা। কিন্তু আলোচনার প্রসঙ্গ উঠতেই তা খারিজ করেন স্পিকার। এর পরই নিজেদের আসনে বসে স্লোগান তুলতে শুরু করেন বিজেপি বিধায়করা। পরিস্থিতি ক্রমশ ঘোরালো হয়ে উঠল বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর নেতৃত্বে বিধানসভা কক্ষ ত্যাগ করেন বিজেপি বিধায়কেরা। তাঁদের অভিযোগ, ডেঙ্গু মোকাবিলায় ডাহা ফেল রাজ্য সরকার।

শুভেন্দু অধিকারী রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দেগে বলেন, “কোনো ইস্যুতে আলোচনা চাইছে না সরকার। ডেঙ্গি মহামারির আকার নিচ্ছে। সংক্রমণ বাড়ছে দিনদিন। তা নিয়ন্ত্রণে নির্দিষ্ট পরিকল্পনা নেই। আগে কোনো বিষয়ে আলোচনা চাইলে স্বাস্থ্যমন্ত্রী সময় দিতেন। কিন্তু এ বার তো দেখা যাচ্ছে, বিরোধীদের কোনো গুরুত্বই নেই”।

তিনি আরও বলেন, “আমাদের অনুরোধ ছিল, অন্তত সরকারের পক্ষে যে কোনও মন্ত্রী বিবৃতি দিয়ে জানান, এ পর্যন্ত ডেঙ্গি পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্য কী কী পদক্ষেপ করা হয়েছে”।

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন