বগটুই হত্যাকাণ্ডে সিবিআই তদন্তের নির্দেশ হাইকোর্টের, ভরসা নয় রাজ্য পুলিশে

0

কলকাতা: বীরভূমের বগটুই-কাণ্ডের তদন্তে আর রাজ্য পুলিশের উপর ভরসা রাখল না কলকাতা হাইকোর্ট। শুক্রবার আদালতের রায়ে জানিয়ে দেওয়া হল, এই মামলার তদন্ত করবে সিবিআই।

গত বৃহস্পতিবারই শেষ হয়েছিল এই সংক্রান্ত মামলাগুলোর শুনানি। তবে রায়দান স্থগিত রেখেছিল প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তবের ডিভিশন বেঞ্চ। শুক্রবারের রায়ে আদালত জানায়, কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাকে রাজ্য যেন সহযোগিতা করে। তার পর সিবিআইকে দ্রুত তদন্তের নির্দেশ দেয় আদালত। জানানো হয়, যত তাড়াতাড়ি সম্ভব গ্রেফতার করতে হবে দোষীদের।

এই ঘটনার তদন্তে সিট গঠন করেছে রাজ্য সরকার। তদন্তকারী দলে রয়েছেন এডিজি সিআইডি জ্ঞানবন্ত সিংহ। এডিজি পশ্চিমাঞ্চল সঞ্জয় সিংহ এবং জিআইজি সিআইডি (অপারেশন) মিরাজ খালিদ। ওয়াকিবহাল মহলের মতে, হাইকোর্টের সিবিআই তদন্তের নির্দেশে কার্যত অপ্রাসঙ্গিক হয়ে গেল রাজ্যের সিট।

হাইকোর্ট জানিয়ে দিল, রাজ্য পুলিশের উপর ভরসা করা যাবে না। আগামী ৭ এপ্রিলের মধ্যে সিবিআই-কে রিপোর্ট জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে আদালত। ওই দিনই মামলার পরবর্তী শুনানি। মামলার তদন্ত কত দূর এগিয়েছে, তা ওই দিনই জানাতে হবে আদালতে।

মামলার রায়ে সিবিআইয়ের হাতে অতিরিক্ত ক্ষমতা দিয়েছে হাইকোর্ট। বলা হয়েছে, শুধু অভিযুক্তরা নন, এই ঘটনায় কাউকে সন্দেহ করা হলে, তাঁকেও গ্রেফতার এবং হেফাজতে নিতে পারবে সিবিআই।

উল্লেখ্য, রামপুরহাট-কাণ্ড নিয়ে হাইকোর্টে গৃহীত স্বতঃপ্রণোদিত মামলা-সহ দায়ের হয়েছিল পাঁচটি মামলা। গত বুধবার প্রধান বিচারপতির এজলাসে এই মামলাগুলির শুনানি হয়। এই ঘটনাকে ‘সিরিয়াস ক্রাইম’ বলে উল্লেখ করে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সিটকে বগটুই-কাণ্ডের রিপোর্ট জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিল আদালত। সেই নির্দেশ মেনেই বৃহস্পতিবার রাজ্যের অ্যাডভোকেট জেনারেল সৌমেন্দ্রনাথ মুখোপাধ্যায় কেস ডায়েরি জমা দেন। তবে শুনানি শেষে রায়দান স্থগিত রাখে হাইকোর্ট।

আরও পড়তে পারেন:

স্বাভাবিক ছন্দে ফিরছে দেশ, তলানিতে করোনা সংক্রমণ

কংগ্রেসের ‘মিশন গুজরাত’-এ প্রশান্ত কিশোর, জোর জল্পনা

এক দিনের বিরতি, ফের বাড়ল পেট্রোল, ডিজেলের দাম

অপরিবর্তিত দৈনিক সংক্রমণ, হাসপাতালে আরও কমল কোভিডরোগী

বগটুই হত্যাকাণ্ডে শুনানি শেষ হাইকোর্টে, স্থগিত রায়দান

মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশের পরই বগটুই-কাণ্ডে গ্রেফতার তৃণমূল নেতা আনারুল, কোথায় মিলল হদিশ

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন