কলকাতা: গরু পাচার মামলায় এ বার অনুব্রত মণ্ডলের দেহরক্ষী সহগল হোসেনকে জেল হেফাজতে রাখার নির্দেশ দিল সিবিআই আদালত।

দ্বিতীয় দফার সিবিআই হেফাজতের মেয়াদ শেষ হওয়ায় শুক্রবার তাঁকে তোলা হয় আসানসোলের সিবিআই আদালতে। সহগলকে নিজেদের হেফাজতে নেওয়ার জন্য আবেদন করে সিবিআই। তবে বিচারক ১৪ দিন জেল হেফাজতের নির্দেশ দেন। জেল হেফাজতে থাকাকালীন জিজ্ঞাসাবাদ করতে পারবে সিবিআই।

এক নজরে সহগলের সম্পদ

আয় বহির্ভূত বহু সম্পত্তির হদিশ পাওয়া গিয়েছে বলে সিবিআই সূত্রে খবর। এগুলির মধ্যে রয়েছে কলকাতার নিউটাউন-সহ একাধিক জায়গায় একাধিক ফ্ল্যাট ও বাড়ি। নিউটাউন, রাজারহাট, লেকটাউন, বোলপুর এলাকায় ৬টির বেশি ফ্ল্যাট, ৫০টির মতো জমির ডিড, দেওচা পাচামিতে একাধিক ক্র্যাশার মেশিন ও ডাম্পার ইত্যাদি রয়েছে সহগল এবং তাঁর ঘনিষ্ঠদের নামে।

এ ছাড়াও বীরভূমে পেট্রোল পাম্প, নগদ টাকা, কয়েকশো গ্রাম সোনা এবং গাড়ির বহর চোখে পড়ার মতোই। সিবিআইয়ের দাবি, ৩টি ১০ চাকার ট্রেলার, ছোট-বড় মিলিয়ে ১০টি গাড়ি রয়েছে সায়গলের।  তাঁর ছোট্ট বাড়ি প্রায় প্রাসাদ হয়ে উঠেছে।

সূত্রের খবর, সহগলের বিষয়সম্পত্তির ‘সিজার লিস্ট’ তুলে ধরে সিবিআই দাবি করেছে, অনুব্রতের দেহরক্ষীর সম্পত্তির পরিমাণ অন্তত ১০০ কোটি টাকা!

তবে সহগলের আইনজীবীর জানিয়েছেন, ১০০ কোটি টাকার সম্পত্তি আছে বলে সিবিআই যে দাবি করেছে, তার কোনও প্রমাণ নেই। সহগলকে গ্রেফতার করার পর তাঁর কলকাতার ফ্ল্যাটে তল্লাশি চালিয়ে যা নথি উদ্ধার হয়েছে, টাকার অঙ্কে তা এক কোটিও হবে না। মাত্র কয়েক লক্ষ টাকার জিনিস উদ্ধার হয়েছে।

৮ জুলাই পর্যন্ত জেল হেফাজতে

উল্লেখ্য,গরুপাচার মামলায় ম্যারাথন জেরার পর গত ৯ জুন সহগলকে গ্রেফতার করে সিবিআই। বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই নিজাম প্যালেসে তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করে সিবিআই। তার পরেই গ্রেফতার। সিবিআই সূত্রের খবর, গরুপাচার কাণ্ডে এনামুল হকের কাছ থেকে টাকা নেওয়ার অভিযোগে তাঁকে গ্রেফতার করেছে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা। সায়গল হোসেন নামে এই দেহরক্ষীকে এর আগেও বেশ কয়েকবার জেরা করেছে সিবিআই।

এ আদালতের নির্দেশে ৮ জুলাই পর্যন্ত জেল হেফাজতে থাকতে হবে অনুব্রতর দেহরক্ষীকে। একজন সাধারণ কনস্টেবল হয়েও, কী ভাবে বিপুল পরিমাণ সম্পত্তির মালিক হলেন সায়গল তার খোঁজ চালাচ্ছেন কেন্দ্রীয় গোয়েন্দারা।

আরও পড়তে পারেন:

গুজরাত দাঙ্গায় মোদীকে ক্লিনচিট দেওয়ার বিরুদ্ধে মামলা খারিজ করল সুপ্রিম কোর্ট

বেতন এবং কাজের সময়ে উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন, ১ জুলাই থেকেই চালু হতে পারে নয়া আইন

মাসে দেড় হাজার টাকায় শিক্ষক! তাও আবার অনার্স এবং বিএড-সহ, বিজ্ঞপ্তি ঘিরে বিতর্ক

সোমবার থেকেই খুলছে সরকারি স্কুল, জানালেন শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু

সনিয়া, মমতা এবং শরদ পওয়ারকে ফোন এনডিএ-র রাষ্ট্রপতি পদপ্রার্থী দ্রৌপদী মুর্মুর

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন