Connect with us

রাজ্য

করোনা রুখতে পশ্চিমবঙ্গের ‘সেফ হোম’-এর ভূয়সী প্রশংসা কেন্দ্রের

খবরঅনলাইন ডেস্ক: করোনা (Coronavirus) ছড়িয়ে পড়া রুখতে আইসিএমআরের (ICMR) নির্দেশমতো রাজ্য যে বিভিন্ন ‘সেফ হোম’ তৈরি করেছে, তার ভূয়সী প্রশংসা করল কেন্দ্র। কিছু দিন আগেই করোনা মোকাবিলা নিয়ে বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্যসচিবদের নিয়ে বৈঠক করেন ক্যাবিনেট সচিব রাজীব গৌবা (Rajib Gouba)।

সেই বৈঠকেই পশ্চিমবঙ্গের এই পদক্ষেপের প্রশংসা করেছেন বলে নবান্ন সূত্রের খবর। সেই সঙ্গে অন্যান্য রাজ্যকেও পশ্চিমবঙ্গের এই মডেল অনুসরণ করার পরামর্শে দিয়েছেন ক্যাবিনেট সচিব।

সেফ হোম কী?

নবান্ন সূত্রে খবর, উপসর্গহীন করোনা রোগীদের কিংবা যাঁদের উপসর্গ একেবারে প্রাথমিক অবস্থায় রয়েছে, তাঁদের বাড়িতে রেখে চিকিৎসা করার পরামর্শ দিয়েছে আইসিএমআর। কিন্তু জনবহুল জায়গাগুলিতে এই ধরনের রোগীকে কোনো ভাবেই বাড়িতে রেখে চিকিৎসা করা সম্ভব নয়।

বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ মেনে পশ্চিমবঙ্গ সরকার কোয়ারান্টাইন কেন্দ্রের মতোই ‘সেফ হোম’ (Safe Home) তৈরি করেছে। যেখানে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীরা নিয়মিত নজরদারি চালাচ্ছেন রোগীর উপর। সুস্থ হলে রোগীরা নিজেদের বাড়িতে ফিরে যাচ্ছেন।

কোনো রোগীর জটিলতা দেখা দিলে তাঁকে সেফ হোম থেকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। সেফ হোমে রোগীর থাকা, খাওয়া ও চিকিৎসার খরচ সরকার বহন করছে। ইতিমধ্যে রাজ্যে ১০৬টি সেফ হোম তৈরি হয়েছে। যেখানে ৬ হাজার ৯০৮টি শয্যা রয়েছে।

অভিবাসী শ্রমিকরা (Migrant Labourers) রাজ্যে ফিরতে শুরু করার পর উপসর্গহীন রোগীর সংখ্যা অনেকটাই বেড়ে যায় রাজ্যে। সে কারণে সেফ হোমের প্রয়োজনীয়তা আগের থেকে অনেক বেড়ে গিয়েছে।

সরকারি উদ্যোগে কলকাতায় এ রকম দু’টি সেফ হোম চলছে। একটি ট্যাংরা এলাকায়, সেখানে দেড়শো শয্যা। দ্বিতীয়টি নিউ টাউনে, সেখানে শয্যা সংখ্যা একশো। এ ছাড়া শহরের কয়েকটি বেসরকারি হাসপাতালও এই মডেল অনুসরণ শুরু করেছে।

সে ক্ষেত্রে হাসপাতাল সংলগ্ন হোটেলে এই সেফ হোম তৈরি করে ‘আইসোলেশন সেন্টার’ নাম দেওয়া হয়েছে।

সূত্রের খবর, পশ্চিমবঙ্গের এই মডেল অনুসরণ করে রাজস্থানও উপসর্গহীন রোগীদের সঙ্গে সেফ হোম তৈরি করেছে। কেন্দ্রের প্রশংসা কুড়িয়েছে সেটাও।

রাজ্য

প্রয়াত বর্ষীয়ান সিপিএম নেতা শ্যামল চক্রবর্তী

বৃহস্পতিবার বেলা ১.৪৫টায় তিনি শেষ নি:শ্বাস ত্য়াগ করেন।

শ্যামল চক্রবর্তী। ফাইল ছবি

কলকাতা: করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বর্ষীয়ান সিপিএম নেতা শ্যামল চক্রবর্তী (Shyamal Chakraborty) প্রয়াত হলেন। জানা গিয়েছে, বৃহস্পতিবার বেলা ১.৪৫টায় তিনি শেষ নি:শ্বাস ত্য়াগ করেন।

জ্বর ও শ্বাসকষ্ট নিয়ে উল্টোডাঙার একটি নার্সিংহোমে গত মাসের শেষের দিকে ভরতি হয়েছিলেন বর্ষীয়ান নেতা। সেখান থেকে তাঁকে বাইপাসের ধারে একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি করা হয়। গত শুক্রবার তাঁর কন্যা ঊষসী সোশ্যাল মিডিয়ার পোস্টে জানান, শ্যামলবাবুর নমুনা পরীক্ষায় করোনাভাইরাস (Coronavirus) পজিটিভ রিপোর্ট এসেছে।

হাসপাতাল সূত্রে জানানো হয়, গত রবিবার রাতে তাঁর অবস্থার কিছুটা অবনতি হয়। তাঁকে ভেন্টিলেটর সাপোর্ট দিতে হয়। এর পর সোমবার শারীরিক অবস্থা কিছুটা উন্নতি হলেও, ফের তাঁকে ভেন্টিলেটর সাপোর্টে রাখা হয়। তারপর থেকেই শারীরিক অবস্থার ক্রমাগত অবনমন হতে শুরু করে।

প্রসঙ্গত, ঊষসী ফেসবুক পোস্টে আগেই জানিয়েছিলেন, প্রবীণ নেতা ও প্রাক্তন মন্ত্রীর ফুসফুসে সংক্রমণ ছিল। এর ফলে আগেও তিনি বহুবার সমস্যায় ভুগেছেন। তবে এ বার চিকিৎসা করাতে হাসপাতালে ভরতি হওয়ার পর করোনা সংক্রামিত হওয়ার আশঙ্কার কথাও তিনি জানান।

দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনে অসংখ্য প্রতিবন্ধকতাকে পরাজিত করেছেন, কিন্তু করোনাকে হারিয়ে আর বাড়ি ফেরা হল না রাজ্যের প্রাক্তনপরিবহণ মন্ত্রীর। মৃত্যুর সময় তাঁর বয়স হয়েছিল ৭৬ বছর। তাঁর মৃত্যুতে শোকের ছায়া রাজনৈতিক মহলে।

পড়তে পারেন: বর্ষীয়ান সিপিএম নেতা শ্যামল চক্রবর্তী করোনা পজিটিভ, সাহায্য প্রার্থনা কন্যা ঊষসীর

Continue Reading

রাজ্য

রেকর্ড সংখ্যক টেস্টের দিন আক্রান্তের সংখ্যায় রেকর্ড, তবে সংক্রমণের হার কিছুটা কম

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে ২৪,০৪৭টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: রাজ্যে কোভিড-আক্রান্তের সংখ্যার ক্রমবর্ধমান যাত্রা লেগেই রয়েছে। যদিও একই সঙ্গে দিন দিন বাড়ছে নমুনা পরীক্ষাও। ফলে আক্রান্তের সংখ্যায় রেকর্ড হলেও সংক্রমণের হার কিছুটা কমে এসেছে। পাশাপাশি সুস্থতা আর মৃত্যুর হারে ইতিবাচক পরিবর্তন অব্যাহত রয়েছে।

রাজ্যের করোনা-তথ্য়

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৮১৬ জন। এর ফলে রাজ্যে এখন মোট করোনা-আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৮৩,৮০০। ৬১ জনের মৃত্যু হওয়ায় রাজ্যে মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১,৮৪৬। রাজ্যে বর্তমানে মৃত্যুহার ২.২০ শতাংশে রয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে সুস্থ হয়েছেন ২,০৭৮ জন। এর ফলে এখনও পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৫৮,৯৬২ জন। রাজ্যে বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ২২,৯৯২।

রাজ্যে সুস্থতার হার এখন বেড়ে হয়েছে ৭০.৩৬ শতাংশ। মোট রোগীর মধ্যে সক্রিয় রোগীর হার আরও কিছুটা কমে ২৭.৪৪ শতাংশ হয়েছে।

উত্তর ২৪ পরগনা পেছনে ফেলল কলকাতাকে

এই প্রথম বার উত্তর ২৪ পরগনায় কলকাতার থেকে বেশি মানুষ কোভিডে আক্রান্ত হলেন। গত ২৪ ঘণ্টায় কলকাতায় আক্রান্ত হয়েছেন ৬৬৫ জন আর উত্তর ২৪ পরগণায় ৭০৯ জন।

কলকাতায় নতুন আক্রান্তের সংখ্যা মোটের ওপরে অপরিবর্তিত। তবে শহরে এ দিন সক্রিয় রোগীর সংখ্যা বেশ কিছুটা কমেছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় শহরে সুস্থ হয়েছেন ৫৯৫ জন। কলকাতায় এখন মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২৫,২০২। সুস্থ হয়েছেন ১৭,৫৬১। মৃত্যু হয়েছে ৮৬০ জনের। শহরে বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৬,৭৮১ জন।

উত্তর ২৪ পরগণায় বর্তমানে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১৮,১৪০। তবে এর মধ্যে এই জেলায় সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১২,২৮৭ জন। মৃত্যু হয়েছে ৪১৬ জনের। এই জেলায় বর্তমানে সক্রিয় রোগী রয়েছেন ৫,৪৩৭ জন।

এ দিন হাওড়ায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৯৩ জন, যা এই জেলার ক্ষেত্রে দৈনিক সর্বোচ্চ। যদিও একই দিনে সুস্থ হয়েছেন ২২৯ জন। অন্য দিকে দক্ষিণ ২৪ পরগণা আর হুগলিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ১৪৬ আর ১৩১ জন।

দুই বর্ধমানে আর পূর্ব মেদিনীপুরে আক্রান্তের সংখ্যায় বড়ো ‘লাফ’

উল্লেখিত তিন জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় মোট ২৭২ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে পূর্ব মেদিনীপুরে ১১২, পূর্ব বর্ধমানে ৭০ আর পশ্চিম বর্ধমানে ৯০ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তবে পূর্ব বর্ধমানে ৭৩ জন সুস্থ হয়েছেন। ফলে এই জেলায় সক্রিয় রোগীর সংখ্যা কিছুটা কমেছে।

এ ছাড়া নদিয়ায় ৬৩ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। দক্ষিণবঙ্গের বাকি জেলায় করোনায় নতুন আক্রান্তের সংখ্যায় উদ্বেগজনক কোনো বৃদ্ধি নেই। বেশ কিছু দিন পর ঝাড়গ্রামে নতুন আক্রান্তের সন্ধান মেলেনি।

উত্তরবঙ্গে ৮ জনের মৃত্যু কোভিডে

গত ২৪ ঘণ্টায় উত্তরবঙ্গের ৮ জনের মৃত্যু হয়েছে কোভিডের কারণে। এর মধ্যে দার্জিলিং জেলারই চার জন।

সব থেকে বেশি আক্রান্তের সন্ধান মিলেছে মালদায় (১৪৪)। এর পর রয়েছে দক্ষিণ দিনাজপুর (১০২)। দার্জিলিং জেলায় নতুন করে ৫৯ জন আক্রান্ত হলেও সুস্থ হয়েছেন ৬৩ জন।

আক্রান্তের সংখ্যা কমেছে জলপাইগুড়ি আর উত্তর দিনাজপুরে। তবে আলিপুরদুয়ার আর কোচবিহারে একসঙ্গে ৮৬ জন কোভিডে আক্রান্ত হয়েছে।

বুধবারের কলকাতা। ছবি: রাজীব বসু।

লকডাউনে থাকল গোটা রাজ্য

আগস্টের প্রথম লকডাউন পালিত হল বুধবার। জুলাইয়ের তিনটে লকডাউনের মতো এ দিনও নিজেদের ঘরবন্দি করে রাখলেন রাজ্যবাসী। রাস্তাঘাট ছিল শুনশান। বাজার-দোকান বন্ধ থাকার ফলে কোথাওই সে ভাবে ভিড় নজরে পড়েনি। যদিও এ দিনও লকডাউন অমান্যকারীদের শায়েস্তা করতে হয়েছে পুলিশকে।

লকডাউনের মধ্যেও অবশ্য এ দিন রাজ্যের কিছু কিছু জায়গায় রামপুজোর আয়োজন করে বিজেপি। তবে বড়ো কোনো মিছিল করা হয়নি।

নমুনা পরীক্ষার তথ্য

গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে ২৪,০৪৭টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে, যা এখনও পর্যন্ত সর্বোচ্চ। এর ফলে রাজ্যে মোট ১০ লক্ষ ৩ হাজার ২৭টি নমুনা পরীক্ষা হল। রাজ্যে বর্তমানে প্রতি দশ লক্ষ মানুষে ১১,১৪৫ জনের করোনা পরীক্ষা হচ্ছে।

উল্লেখযোগ্য বিষয় হল রাজ্যে দৈনিক সংক্রমণের হার কিছুটা কমেছে। সপ্তাহ দুয়েক আগে এটা বিপজ্জনক জায়গায় চলে গিয়েছিল। দৈনিক সংক্রমণের হার পৌঁছে গিয়েছিল ১৬.৩১ শতাংশে। মঙ্গলবার দৈনিক সংক্রমণের হার ছিল সাড়ে ১২ শতাংশ। বুধবার সেটা কিছুটা কমে এসেছে ১১.৭১ শতাংশে।

Continue Reading

রাজ্য

অযোধ্যায় শুরু রামমন্দির নির্মাণ, রামরাজ্যের আদর্শে উচ্ছ্বসিত রাজ্যপাল জগদীপ ধানখড়

“মন্দির কমপ্লেক্স রামরাজ্যের আদর্শের ভিত্তিতে আধুনিক ভারতের প্রতীক হয়ে উঠবে”, বললেন ধানখড়।

পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল জগদীপ ধানখড়। ফাইল ছবি

ওয়েবডেস্ক: অযোধ্যায় রামমন্দিরের (Ram mandir) ভূমিপুজো এবং ভিত্তিপ্রস্তর অনুষ্ঠান নিয়ে আগেই উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছিলেন পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল জগদীপ ধানখড় (Jagdeep Dhankhar)। বুধবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর হাতে শিল্যান্যাসের পরই এই ঘটনাকে স্বপ্নের উপলব্ধি বলে উল্লেখ করলেন তিনি।

এর আগে ধানখড় বলেছিলেন, প্রতিটি ভারতবাসীর কাছে এটি গৌরবের মুহূর্ত। এ দিন শিলান্যাসের পর রাজ্যপাল টুইটারে লিখেছেন, “এক ঐতিহাসিক মুহূর্ত! রামমন্দির নির্মাণ শুরু। যেন একটি স্বপ্ন উপলব্ধি”।

তিনি আরও লিখেছেন, “উল্লেখযোগ্য ভাবে মর্যাদা পুরুষোত্তম প্রভু রামের মন্দিরটি সুপ্রিম কোর্টের রায় মেনে নির্মিত হচ্ছে”।

আশাপ্রকাশ করে লিখেছেন, “মন্দির কমপ্লেক্স রামরাজ্যের আদর্শের ভিত্তিতে আধুনিক ভারতের প্রতীক হয়ে উঠবে”।

[ছবি: রাজ্যপালের টুইটার থেকে]

এ প্রসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীকেও আক্রমণ করতে ছাড়েননি রাজ্যপাল। এ দিন আরও একটি টুইটে রাজ্যপাল লিখেছেন, “আজকের এই দিনটির জন্য দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করতে হয়েছে। বিচার ব্যবস্থাকে এমন ঐতিহাসিক রায়ের জন্য ধন্যবাদ। তোষণের পাকে-চক্করে প‌ড়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা রামমন্দির নিয়ে নীরব হয়ে রয়েছেন। রাজ্যবাসীকে নিজের অবস্থান জানান”।

জানিয়েছেন, অযোধ্যায় রামমন্দিরের ভূমিপুজো উপলক্ষ্যে বুধবার প্রদীপের আলোয় সেজে উঠবে রাজভবন। মঙ্গলবার একটি টুইটে রাজ্যপাল জানান, ভূমিপুজো উপলক্ষে রাজভবনে এ দিন সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় প্রদীপ জ্বালানো হবে।

[অযোধ্যায় ভূমিপুজোর অনুষ্ঠান। ছবি: দূরদর্শন থেকে]

প্রসঙ্গত, অযোধ্যার অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (Narendra Modi) বলেন, ” দীর্ঘ অপেক্ষার অবসান। আমি দেশের সমস্ত নাগরিক, বিশ্বজুড়ে প্রবাসী ভারতীয় এবং ভগবান রামের সমস্ত ভক্তদের আজকের পবিত্র অনুষ্ঠানের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। আজকের দিনটি কয়েক বছরব্যাপী সংকল্প, উৎসর্গ এবং সংগ্রামের সমাপ্তিকে চিহ্নিত করছে”।

Continue Reading
Advertisement
দেশ7 hours ago

কোভিড আপডেট: নতুন করে আক্রান্ত ৫৬২৮২, সুস্থ ৪৬১২১

গাড়ি ও বাইক1 day ago

পেট্রোলচালিত গাড়ি ‘এস-ক্রস’ বাজারে নিয়ে এল মারুতি সুজুকি

ক্রিকেট1 day ago

আইপিএলের নিয়মাবলি: গুচ্ছের টেস্টিং, চলা-ফেরায় নিয়ন্ত্রণ, একটি দলের জন্য একটি হোটেল

দেশ1 day ago

রুপোর ইট দিয়ে রামমন্দিরের শিলান্যাস করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

ক্রিকেট1 day ago

অঘটন! ৩২৯ তাড়া করে বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের হারাল আয়ারল্যান্ড

ক্রিকেট2 days ago

বিতর্কের মধ্যেই আইপিএলের সঙ্গত্যাগ করল চিনা সংস্থা ভিভো

রাজ্য3 days ago

লকডাউনের সূচি ফের বদলাল রাজ্যে

দেশ2 days ago

কোভ্যাক্সিনের ট্রায়ালের শুরুতেই হোঁচট! কুড়ি শতাংশ স্বেচ্ছাসেবকের শরীরে মিলল করোনার অ্যান্টিবডি

রবিবারের খবর অনলাইন

কেনাকাটা

কেনাকাটা16 hours ago

শুরু হল অ্যামাজন প্রাইম ডে সেল, জেনে নিন কোন জিনিসে কত ছাড়

খবরঅনলাইন ডেস্: শুরু হল অ্যামাজন প্রাইম ডে সেল। চলবে ২ দিন। চলতি মাসের ৬ ও ৭ তারিখ থাকছে এই অফার।...

things things
কেনাকাটা6 days ago

করোনা আতঙ্ক? ঘরে বাইরে এই ১০টি জিনিস আপনাকে সুবিধে দেবেই দেবে

খবরঅনলাইন ডেস্ক : করোনা পরিস্থিতিতে ঘরে এবং বাইরে নানাবিধ সাবধানতা অবলম্বন করতেই হচ্ছে। আগামী বেশ কয়েক মাস এই নিয়মই অব্যাহত...

কেনাকাটা1 week ago

মশার জ্বালায় জেরবার? এই ১৪টি যন্ত্র রুখে দিতে পারে মশাকে

খবরঅনলাইন ডেস্ক: একে করোনা তায় আবার ডেঙ্গুর প্রকোপ শুরু হয়েছে। এই সময় প্রতি বারই মশার উৎপাত খুবই বাড়ে। এই বারেও...

rakhi rakhi
কেনাকাটা2 weeks ago

লকডাউন! রাখির দারুণ এই উপহারগুলি কিন্তু বাড়ি বসেই কিনতে পারেন

সামনেই রাখি। কিন্তু লকডাউনের মধ্যে মনের মতো উপহার কেনা একটা বড়ো ঝক্কি। কিন্তু সেই সমস্যা সমাধান করতে পারে অ্যামাজন। অ্যামাজনের...

কেনাকাটা2 weeks ago

অনলাইনে পড়াশুনা চলছে? ল্যাপটপ কিনবেন? দেখে নিন ৪০ হাজার টাকার নীচে ৬টি ল্যাপটপ

ইনটেল প্রসেসর সহ কোন ল্যাপটপ আপনার অনলাইন পড়াশুনার কাজে লাগবে জেনে নিন।

কেনাকাটা2 weeks ago

করোনা-কালে ঘরে রাখতে পারেন ডিজিটাল অক্সিমিটার, এই ১০টির মধ্যে থেকে একটি বেছে নিতে পারেন

শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা বুঝতে সাহায্য করে এই অক্সিমিটার।

কেনাকাটা3 weeks ago

লকডাউনে সামনেই রাখি, কোথা থেকে কিনবেন? অ্যামাজন দিচ্ছে দারুণ গিফট কম্বো অফার

খবরঅনলাইন ডেস্ক : সামনেই রাখি। কিন্তু লকডাউনের মধ্যে দোকানে গিয়ে রাখি, উপহার কেনা খুবই সমস্যার কথা। কিন্তু তা হলে উপায়...

laptop laptop
কেনাকাটা3 weeks ago

ল্যাপটপ কিনবেন? দেখে নিন ২৫ হাজার টাকার মধ্যে এই ৫টি ল্যাপটপ

খবরঅনলাইন ডেস্ক : কোভিভ ১৯ অতিমারির প্রকোপে বিশ্ব জুড়ে চলছে লকডাউন ও ওয়ার্ক ফ্রম হোম। অনেকেই অফিস থেকে ল্যাপটপ পেয়েছেন।...

কেনাকাটা4 weeks ago

হ্যান্ডওয়াশ কিনবেন? নামী ব্র্যান্ডগুলিতে ৩৮% ছাড় দিচ্ছে অ্যামাজন

খবরঅনলাইন ডেস্ক : করোনাভাইরাস বা কোভিড ১৯ এর সঙ্গে লড়াই এখনও জারি আছে। তাই অবশ্যই চাই মাস্ক, স্যানিটাইজার ও হ্যান্ডওয়াশ।...

কেনাকাটা4 weeks ago

ঘরের একঘেয়েমি আর ভালো লাগছে না? ঘরে বসেই ঘরের দেওয়ালকে বানান অন্য রকম

খবরঅনলাইন ডেস্ক : একে লকডাউন তার ওপর ঘরে থাকার একঘেয়েমি। মনটাকে বিষাদে ভরিয়ে দিচ্ছে। ঘরের রদবদল করুন। জিনিসপত্র এ-দিক থেকে...

নজরে

Click To Expand