metro railway

ওয়েবডেস্ক: রাজ্য যদি জমি না জোগাড় করে দেয় তা হলে প্রস্তাবিত মেট্রো প্রকল্পগুলি দিনের আলো নাও দেখতে পারে। এমনই জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়ল। রেলমন্ত্রীর এই বক্তব্যের পরে, ব্যারাকপুর, বারাসত এবং বারুইপুরে প্রস্তাবিত মেট্রো প্রকল্পগুলিকে নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে।

তবে সেই সঙ্গে তিনি এ-ও বলেছেন যে বর্তমানে যে প্রকল্পগুলির কাজ চলছে অর্থাৎ, নিউ গড়িয়া-দমদম বিমানবন্দর বা ইস্ট-ওয়েস্ট মেট্রোর কাজে বাধা আসবে না। গোয়ল বলেন, “জমি পাওয়া গেলেই অনুদান দেওয়া হবে। তা হলেই মেট্রো প্রকল্পের কাজগুলি হবে।”

গত কয়েক বছর মেট্রোর বিভিন্ন প্রকল্পের কাজ জমি-জটে আটকে গিয়েছে। সেই রকম পরিস্থিতি যাতে আর না হয়, তাই আগে জমি দেখেই অনুদান দেওয়া হবে, এমনই ধারণা ওয়াকিবহাল মহলের। এই প্রসঙ্গে রেলের এক আধিকারিক বলেন, “গত কয়েক বছরে বিভিন্ন মেট্রোর কাজ জমির অভাবে আটকে গিয়েছে মাঝেমধ্যেই। বিমানবন্দর থেকে দক্ষিণেশ্বরের প্রকল্প আটকে গিয়েছিল। ওই রকম সমস্যা না হলে এত দিনে ওই প্রকল্পের কাজ শেষ হয়ে যেত। একই রকম ব্যাপার ঘটেছে বিটি রোডে। জমি সমস্যায় আটকে গিয়েছে মেট্রো প্রকল্পের কাজ।”

গত বছর রেল বাজেটের পরে কেন্দ্রের ওপরে ক্ষুব্ধ হয়েছিল রাজ্য সরকার। কারণ প্রস্তাবিত নিউ গড়িয়া-বারুইপুর, বারাসত-ব্যারাকপুর, জোকা-ডায়মন্ড হারবার মেট্রো প্রকল্পের ব্যাপারে কেন্দ্র কোনো উল্লেখ করেনি। তবে রেলের আধিকারিক সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, ওই প্রকল্পগুলির বাস্তবায়নের সম্ভাবনা বেশ কম।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন