Syed Mohammad Noor ur Rahman Barkati

ওয়েবডেস্ক: কলকাতার ধর্মতলায় টিপু সুলতান মসজিদের ট্রাস্টি বোর্ডের পৃষ্ঠপোষক শাহাজাদা আনোয়ার আলি বহিষ্কৃত ইমাম সৈয়দ মহম্মদ নুরুর রহমান বরকতির বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ তুললেন৷ সংবাদ মাধ্যমের কাছে তাঁর দাবি, ইমামের দায়িত্বে থাকাকালীন বরকতি বেআইনি ভাবে মোটা টাকার বিনিময়ে বিয়ে দিয়েছেন। কেন বেআইনি?

জানা গিয়েছে, যে কোনো মসজিদের ইমাম নমাজপাঠ পরিচালনা করার গুরুত্বপূর্ণ কাজ ছাড়া আর অন্য কিছু করতে পারেন না। যেমন তিনি বিয়েও দিতে পারেন না। সে ক্ষেত্রে প্রয়োজন হয় কাজির। কাজির উপস্থিতিতেই মুসলিম সমাজে বিয়ের রীতি রয়েছে। কিন্তু সেই রীতি ভঙ্গ করার অভিযোগ উঠেছে বরকতির বিরুদ্ধে। পাশাপাশি রয়েছে, মোটা টাকার বিনিময়ের অভিযোগ।

টিপু সুলতান মসজিদের পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছে ওয়াকফ এস্টেট অফ প্রিন্স গোলাম মহম্মদ। তারাই বরকতির বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণের কথা জানিয়েছে। আনোয়ার দাবি করেছেন, একাধিক বেআইনি বিয়ে দিয়েছেন বরকতি। ওই কাজের জন্য নিজের কাছে একটি বেআইনি ম্যারেজ রেজিস্টার রাখতেন তিনি। পদে থাকাকালীন নিজের কাছে রাখা ওই রেজিস্টার, বহিস্কৃত হওয়ার পরেও হাতছাড়া করেননি তিনি। কী ভাবে প্রকাশ্যে এল এই ঘটনা?


আরও পড়ুন: উত্তরবঙ্গের দুই জেলায় বড়োসড়ো বাস দুর্ঘটনা, আহত ৬৫


আনোয়ার জানান, তৎকালীন ইমামপদে থাকা বরকতির ওই কর্মকাণ্ড ঘিরে অভিযোগ আসছিল। অনেকেই জাল সার্টিফিকেট-সহ অভিযোগ জানান। সেই জাল সার্টিফিকেটের উৎস সন্ধান করতে গিয়েই পুরো ঘটনাটি প্রকাশ্যে চলে আসে বল তাঁর দাবি।

যদিও যাঁর বিরুদ্ধে এই অভিযোগ, সেই বরকতি এ বিষয়ে কিছু জানেন না বলেই সংবাদ মাধ্যমে উল্লেখ করা হয়েছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here