Congress-Purulia
পুরুলিয়ায় গৌরব গগৈ, ছবি: প্রতিবেদক

শুভদীপ চৌধুরী, পুরুলিয়া: বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে  ভারতের সঙ্গে ফ্রান্সের “রাফাল যুদ্ধ বিমান ক্রয়” চুক্তিতে দুর্নীতির অভিযোগ তুললেন সাংসদ তথা কংগ্রেসের পশ্চিমবঙ্গ পর্যবেক্ষক গৌরব গগৈ । শুক্রবার এক সাংবাদিক বৈঠকে তিনি বলেন, কেন্দ্রে থাকা মোদী সরকার রাফাল বিমান কেলেঙ্কারিকে আড়াল করে আরও বেশি করে প্রমাণ করে দিয়েছে যে তারাও এই দুর্নীতির সাথে যুক্ত ।

গৌরব বলেন, ২০১২ সালের ১২ ডিসেম্বর ফ্রান্সের সঙ্গে মোট ১২৬টি চুক্তি হয় তৎকালীন কংগ্রেস সরকারের, এই চুক্তি অনুযায়ী প্রত্যেকটি যুদ্ধবিমানের মূল্য নির্ধারিত হয় ৫২৬ কোটি ১০ লক্ষ টাকা, এর মধ্যে আবার ১৮টি বিমান তৈরি অবস্থায় হস্তান্তর করার কথা হয় ও একইসঙ্গে বিমান তৈরির কারিগরি কৌশল হস্তান্তরিত করা সহ বাকি ১০৮টি বিমান তৈরি করার বরাত পায় । সেই হিসেবে ৩৬টি রাফাল যুদ্ধ বিমানের জন্য দেশের রাজকোষ থেকে খরচ করার কথা হয় ১৮ হাজার ৯৪০ কোটি টাকা । কিন্তু পূর্বের চুক্তি বাতিল করে বিজেপি সরকার দায়িত্বে এসেই ২০১৫ সালে নতুন ভাবে ফ্রান্সের সঙ্গে রাফালের চুক্তি করে ও যাতে বিমানের সংখ্যা ১২৬ থেকে কমে ১৬টিতে দাঁড়ায় । প্রতিটি বিমানপিছু দাম বেড়ে দাঁড়ায় ১৬৭০ কোটি টাকা । সেই হিসেবে ৩৬টি রাফাল যুদ্ধবিমান ক্রয় করতে লাগবে ৬০ হাজার ১৪৫ কোটি টাকা ।

Congress-Purulia-2
সাংবাদিক বৈঠক শেষে সাংগঠনিক বৈঠক ও মিছিলে গগৈ

এ ছাড়াও শুক্রবার পুরুলিয়ার জেলা কংগ্রেস ভবনে সাংসদ গৌরব সাংবাদিক বৈঠকে বলেন, চুক্তির মাত্র ১২ দিন আগে রিলায়েন্স ডিফেন্স লিমিটেডের ওপর বিমান তৈরির দায়িত্ব দেয় বিজেপি সরকার । তিনি বলেন, “যাদের কোম্পানির কোনো অস্তিত্বই নেই তাদের ওপর এত বড়ো দায়িত্ব দিয়ে বোকামির পরিচয় দিচ্ছে মোদী সরকার” ।

এ দিন মোদী সরকারকে কটাক্ষ করে গগৈ বলেন, “নিজেকে স্বঘোষিত চৌকিদার বলে বিজয় মালিয়া, নীরব মোদীদের তৈরি করছেন ধনী আর গরিব, খেটে খাওয়া ক্ষেতমজুর, শ্রমিকদের ধ্বংসের পথে ঠেলে দিচ্ছেন । যখন যা খুশি নির্দেশ ঘোষণা করে দিচ্ছেন যে সব নির্দেশিকার ঠেলা এসে পড়ছে গরিব মানুষদের ওপর” ।

গগৈ বলেন, “বিজেপির এই দুষ্কৃতী সরকারকে ঠেকাতে বিভিন্ন জেলায় জেলায় মিটিং, মিছিল করে মানুষকে সতর্ক করছে কংগ্রেস । শুধু পুরুলিয়া নয়, রাজ্যের প্রতিটি জেলাতেই বিজেপি সরকারের দুর্নীতি আর ব্যর্থতার কথা সাধারণ মানুষের কাছে তুলে ধরে হবে”। সাংবাদিক বৈঠক শেষে দলীয় নেতৃত্বের সঙ্গে সাংগঠনিক বৈঠকে যোগ দেন তিনি। শেষে কংগ্রেসের তরফে একটি প্রতিবাদ মিছিলেও পা মেলান গগৈ ।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন