কলকাতা: প্রথম এবং দ্বিতীয় ঢেউয়ের তুলনায় এই মুহূর্তে কলকাতায় কোভিডের উপসর্গ অনেকটাই বদলে গিয়েছে। তবে সেটা আশংকার কিছুই নয়, বরং স্বস্তির। এমনই জানাচ্ছেন কলকাতার চিকিৎসকরা। রোগটি এখন আগের থেকে অনেকটাই মৃদু হয়ে গিয়েছে বলেও জানাচ্ছেন তাঁরা। টিকাকরণের ফলেই এটা হচ্ছে বলে মনে করা হচ্ছে।

চিকিৎসকরা জানাচ্ছেন, টিকার দু’টো ডোজের পরে কোভিড এখন সাধারণ জ্বর-সর্দিকাশির মতোই আচরণ করছে। ভয়াবহ আকার নিচ্ছে না। তাই অনেকেই রোগীদের টেস্ট করানোর কথা বলছেন না। বরং সাবধানতা অবলম্বন করে ক’টা দিন বাড়ি থেকে না বেরোনোর পরামর্শ দিচ্ছেন।

বেশ কিছু চিকিৎসক বলছেন, সাধারণ জ্বর-সর্দিকাশির থেকে এখন কোভিডকে আর প্রায় আলাদা করা সম্ভব নয়। কিন্তু যখন তাঁরা দেখেন যে বাড়ির একাধিক বাসিন্দার একই রকম উপসর্গ এক সঙ্গে ধরা পড়ছে, তখনই তাঁরা কোভিড টেস্ট করানোর কথা বলছেন। অনেক ক্ষেত্রেই রিপোর্ট পজিটিভ আসছে।

বালিগঞ্জের চিকিৎসক সব্যসাচী বর্ধন টাইমস অব ইন্ডিয়াকে বলেন, “এখন সাধারণ জ্বরেরই সময়। তাই আমাদেরও প্রাথমিক ভাবে রোগীদের দেখে মনে হয় সাধারণ জ্বরেই আক্রান্ত তাঁরা। কিন্তু যখনই দেখছি যে একই পরিবারের অনেকে একই রকম জ্বরে আক্রান্ত, তখনই কোভিড টেস্ট করানোর কথা বলছি।”

সব্যসাচীবাবু আরও বলেন, সাম্প্রতিককালে কাউকেই হাসপাতালে যেতে হচ্ছে না চিকিৎসার জন্য। বেশির ভাগ রোগীই অল্প কয়েক দিনের মধ্যে সুস্থ হয়ে যাচ্ছেন। খুব অল্প সংখ্যক মানুষের অসুস্থতা থাকছে আরও কয়েক দিন। সে ক্ষেত্রে অসুস্থতার সপ্তম-অষ্টম দিনে গিয়ে তাঁরা স্বাদ আর গন্ধের অনুভূতি হারাচ্ছেন। প্রথম এবং দ্বিতীয় ঢেউয়ের সময় স্বাদ-গন্ধ চলে যেত অসুস্থতার প্রথম দিকেই।

কাঁকুড়গাছির চিকিৎসক দেবব্রত সাহা বলেন, গত এক সপ্তাহে তিনি ৪০ জন কোভিডরোগীর চিকিৎসা করেছেন। এর মধ্যে মাত্র একজনকে হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছিল। তাঁর বক্তব্য, “প্রথম এবং দ্বিতীয় ঢেউয়ের সময় কোভিড হলে রোগীর শুকনো কাশি হত। কিন্তু এখন কাশির সঙ্গে সর্দিও হচ্ছে, কফও বেরোচ্ছে। আগে মারাত্মক জ্বর হত, তাপমাত্রা বেড়ে যেত ক্রমশ। কিন্তু এখন মৃদু জ্বর হচ্ছে। তাপমাত্রা বেশি বাড়ছে না।”

কলকাতা শহরাঞ্চলে টিকাকরণের গতি যথেষ্ট ভালো। বেশির ভাগেরই টিকার দু’টি ডোজ নেওয়া হয়েছে গিয়েছে। ঠিক সে কারণেই এখন সাধারণ জ্বর-সর্দিকাশির মতোই হয়ে গিয়েছে কোভিড। তবে চিকিৎসকরা জানাচ্ছেন, যাঁদের বুকে সংক্রমণের ধাত রয়েছে, তাঁরা যেন সাধারণ ফ্লু-এর টিকা এখনই নিয়ে নেন।

আরও পরতে পারেন

অযোধ্যা কাণ্ড নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের জের, সলমন খুরশিদের বাড়িতে আগুন হিন্দুত্ববাদীদের

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন