আশ্বাস-ই সার! সরকারি প্রকল্পে কৃষি জমির বদলে মেলেনি ক্ষতিপূরণ, আন্দোলন শুরু ফাঁসিদেওয়ায়

0

“আমাদের তিন ফসলি কৃষি জমি নিয়েছে, দেয়নি কিছুই। সরকার আমাদের অ্যারেস্ট করুক”, বলছেন আন্দোলনকারীরা।

নিজস্ব প্রতিনিধি: ফাঁসিদেওয়া ব্লকের অন্তর্গত ছোটপথু এলাকায় জমি অধিগ্রহণকে কেন্দ্র করে পশ্চিমবঙ্গ সরকার থেকে প্রতিশ্রুতি দেওয়ার পরও তা পূরণ করা হয়নি। সেই প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়িত না হওয়ায় ছোটপথু এলাকায় একটি আন্দোলন কর্মসূচিতে নেমে পড়লেন স্থানীয়দের একাংশ।

এ দিনের এই আন্দোলন কর্মসূচি সম্পর্কে এক জমির মালিক কৃষ্ণপদ সিংহকে পুরো বিষয়টি নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি জানান, এই ফাঁসিদেওয়া ব্লকের অন্তর্গত ছোটপথু এলাকায় প্রায় ৫০ জনের উপরে মানুষের কৃষি জমি রয়েছে এবং সেই কৃষিজমিতে বিগত ৪০ বছর ধরে চাষবাস-সহ কেউ কেউ বসবাস করে চলেছেন। ১৯৮৬ সাল নাগাদ তিস্তা ব্যারেজ কর্তৃপক্ষ সেখানে বসবাসকারী মানুষদের সঙ্গে কথা বলে আশ্বাস দিয়েছিলেন যে, সেই জমির ওপর নাকি একটি জলের ডাম্প বসানো হবে। এর পরিবর্তে ক্ষতিপূরণ-সহ পরিবারের এক জনকে চাকরির ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে। সেই প্রতিশ্রুতির ভিত্তিতে শুধুমাত্র সেখানে দুই থেকে তিনজনকেই এই সুবিধা দেওয়া হয় বলে দাবি।

কিন্তু যাঁরা এই সুবিধা পাননি, তাঁরা সেখানে বসবাস করে চাষবাস শুরু করেন। তবে আজ না কি আচমকা, কার্যত জোর করে ঘোষপুকুর তথা বিধাননগর বনদফতর সেই জমির উপরে বেশ কিছু গাছ লাগানোর চেষ্টা করছে।

কৃষ্ণপদবাবু জানালেন, কী ভাবে তিস্তা ব্যারেজ কর্তৃপক্ষ এই জায়গাটি বন দফতরকে দিলেন সেটা জানাতে হবে। একই সঙ্গে তাঁর প্রশ্ন, ওই জমিতে একটি শ্মশান পর্যন্ত রয়েছে। সেটাও যদি ভেঙে দেওয়া হয়, তা হলে মৃতদেহ সৎকারের কাজ কী ভাবে হবে?

একাংশের দাবি, তিস্তা ব্যারেজ কর্তৃপক্ষ লিখিত ভাবে যোগাযোগ করে এ বিষয়ে এক আলোচনার আয়োজন করেছেন আগামী ১০ সেপ্টেম্বর।

আন্দোলনকারীদের বক্তব্য শুনুন এখানে: সরকারি প্রকল্পে কৃষি জমির বদলে মেলেনি ক্ষতিপূরণ, শুরু আন্দোলন

আজকের আরও কিছু উল্লেখযোগ্য খবর পড়ুন এখানে:

হাজিরার ৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই ফের অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে তলব করল ইডি

অসুস্থ মুকুল রায়, আর্জি রাখতে পিএসি মামলায় ২ দিন বাড়তি সময় দিল হাইকোর্ট

শরিয়তি আইন প্রতিষ্ঠাই মূল লক্ষ্য, জানিয়ে দিল তালিবান

সাংসদ অর্জুন সিংহের বাড়ি লক্ষ্য করে বোমাবাজি, টুইট উদ্বেগ প্রকাশ রাজ্যপালের

কেরলে লাগাম পড়ছে কোভিডে, পর পর ৭ দিন কমল সংক্রমণের হার

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন