Mamata Banerjee at Binpur and rally
ছবি: প্রতিবেদক

এই প্রথম আন্তর্জাতিক আদিবাসী দিবসের অনুষ্ঠানে ৯ আগস্ট ঝাড়গ্রামে মমতা বন্দোপাধ্যায়ের সভা 

Samir mahat
সমীর মাহাত

ঝাড়গ্রাম: লোকসভা নির্বাচন যতই ঘনিয়ে আসছে, ততই জটিল হচ্ছে আদিবাসী অধ্যুষিত জঙ্গল মহল এলাকার রাজনৈতিক সমীকরণ। গত পঞ্চায়েত নির্বাচনে ঝাড়গ্রাম ও পুরুলিয়ায় বিক্ষিপ্ত ভাবে দলের ফল খারাপ হওয়ায় নড়েচড়ে বসেন তৃণমূল সুপ্রিমো তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়। দলের নেতৃত্ব ও দায়িত্বের আমূল বদল ঘটানো হয়।এক প্রকার কোণঠাসা হয়ে পড়েন পূর্বতন মন্ত্রী চূড়ামণি মাহাত। প্রাধান্য বাড়ে ঝাড়গ্রাম বিধায়ক সুকুমার হাঁসদার। দলের পর্যবেক্ষক মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের পাশে অধিকাংশ সভায় তাঁকে  থাকতে দেখা গিয়েছে। তবে যাই হোক, গোটা জঙ্গল মহলের আদিজনজাতিদের ভোট ব্যাঙ্ক একটা বড়ো ফ্যাক্টর।

বেসরকারি মতে, জনজাতি তফশিলি ও তফশিলি উপজাতি ভোট প্রায় ৩০ শতাংশ, কুড়মি জনজাতির ভোট প্রায় ৪০ শতাংশ, বাকি সাধারণ। ঝাড়গ্রাম লোকসভা কেন্দ্রটি তফশিলি উপজাতির জন্য সংরক্ষিত। কুড়মিরা তফশিলি উপজাতি তালিকায় না থাকায় এই নির্বাচনে দাঁড়াতে পারেনি।

Mamata Banerjee at Binpur
২০১৩, বিনপুরের সভায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ছবি: প্রতিবেদক

ঝাড়গ্রাম এলাকায় তফশিলি ও তফশিলি উপজাতিদের বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন পৃথক দাবি দাওয়া নিয়ে ইতিমধ্যেই পথ সভা করেছে, যেমন মুন্ডারি ভাষা স্বীকৃতির দাবি। পাশাপাশি কুড়মিদের বৃহত্তর সামাজিক সংগঠন আদিবাসী কুড়মি সমাজ পুনরায়  তফশিলি উপজাতি তালিকায় অন্তর্ভুক্তির জন্য দিল্লির রামলীলা ময়দানে অবস্থান কর্মসূচি নিয়েছে। এ রাজ্য সহ ওড়িশা, ঝাড়খণ্ড, অসম এবং উত্তর দিনাজপুরে এই আন্দোলন ভালো মতো প্রভাব ফেলেছে, যার কেন্দ্রস্থল জঙ্গল মহল।

রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে, লোকসভা নির্বাচনের আগে কেন্দ্র যদি কুড়মিদের দাবিতে সায় দেয়, তাহলে জঙ্গল মহলের রাজনৈতিক সমীকরণে তার প্রকট প্রভাব পড়বে। এ রকম একটা পরিস্থিতিতে এই প্রথম আন্তর্জাতিক আদিবাসী দিবসের অনুষ্ঠানে মমতা বন্দোপাধ্যায় ৯ আগস্ট ঝাড়গ্রামের ঘোড়াধরা স্টেডিয়ামে সভা করতে আসছেন। সভার সাফল্য কামনায় সাংসদ উমা সোরেনের নেতৃত্বে পথসভাও হয়। এক বিশেষজ্ঞের মতে, মুখ্যমন্ত্রীর এই সভা অনেকেগুলি দিক দিয়ে তাৎপর্যপূর্ণ, আগস্টের মধ্যেই রয়েছে পঞ্চায়েতের প্রধান গঠন, বিজেপি থেকে যাঁরা তৃণমূলে ভিড়েছে তাঁরা ভরসা পাবেন। কয়েক মাস পরই রয়েছে ঝাড়গ্রাম পুরসভার নির্বাচন, সর্বোপরি লোকসভা নির্বাচন তো আছেই। কেন না প্রতিপক্ষ বিজেপিও চুপচাপ বসে নেই। ”

শান্ত জঙ্গল মহলে যৌথবাহিনীর টহল!


এখন সভা থেকে মমতা কী বার্তা দেন, সে দিকেই তাকিয়ে আছে রাজনীতির কারবারিরা।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here