বিধানসভায় দাঁড়িয়ে মমতার গলায় ‘মনমোহনী’ সুর!

0
ফাইল ছবি

ওয়েবডেস্ক: অর্থনীতির সংকট থেকে সাধারণ মানুষের দৃষ্টি সরিয়ে নিতে কেন্দ্র ‘রাজনৈতিক প্রতিহিংসা’র পথ ধরছে বলে অভিযোগ তুললেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। শুক্রবার রাজ্য বিধানসভায় দাঁড়িয়ে তিনি কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দাগেন। প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী পি চিদম্বরমের গ্রেফতারি থেকে শুরু করে অসমের সাম্প্রতিক এনআরসি ইস্যুতে তিনি আক্রমণ করেন কেন্দ্রকে। একই সঙ্গে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংয়ের পরামর্শ ‘ধার’ করেও আক্রমণ শানান নরেন্দ্র মোদী সরকারের বিরুদ্ধে।

মমতার কথায়, “আমি ড. মনমোহন সিংয়ের কথার প্রতিধ্বনি করেই বলছি, অর্থনীতিতে বেশি মনোনিবেশ করার বদলে রাজনৈতিক প্রতিহিংসাতেই জোর দেওয়া হচ্ছে”।

গত বৃহস্পতিবার দিল্লির তিহার জেলে যে ভাবে চিদম্বরমকে পাঠানো হয়েছিল, এ দিন তার সমালোচনা করেন মমতা। বলেন, সরকারের উচিত ছিল তাঁকে “ন্যূনতম শ্রদ্ধা” দেখানো। সাধারণ বন্দিদের মতো তাঁর প্রতি ওই আচরণ মেনে নেওয়া যায় না।

চিদম্বরম প্রসঙ্গে মমতা বলেন, “আইন চলবে আইনের পথেই। আমি পুরো ব্যাপারটা জানি না। তবে ঠিক কী কারণে সাধারণ বন্দিদের তাঁকে তিহার জেলে রাখা হল? তারা তো তাঁকে ন্যূনতম সম্মান দিতে পারত”!

Shyamsundar

আরও পড়ুন: সরকারি কর্মীদের এলটিসি বিলে ‘দুর্নীতি’ রুখতে বিজ্ঞপ্তি জারি রাজ্য সরকারের

একই সঙ্গে কেন্দ্রের উদ্দেশে মমতার পরামর্শ, রাজনৈতিক প্রতিহিংসার বদলে দেশের অর্থনীতিকে পোক্ত করতে উদ্যোগী হোক কেন্দ্র। এমনকী চন্দ্রযান ২ নিয়ে কেন্দ্রের উদ্যোগে বাড়াবাড়ি দেখছেন মমতা। তাঁর মতে, কেন্দ্রীয় সরকার অর্থনীতির বেহাল দশা থেকে নজর ঘোরাতেই চ্ন্দ্রযান ২ নিয়ে এত মাতামাতি করছে। এর আগেও চাঁদে অভিযান করেছে ভারত।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন