abhishek banerjee
অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। ফাইল ছবি।

কলকাতা: রবিবার থেকে সোনা কাণ্ড নিয়ে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে রাজ্যের রাজনৈতিক পরিস্থিতি। এই ব্যাপারে এ বার তৎপর হল নির্বাচন কমিশন। ১৫ মার্চ রাতে দমদম বিমানবন্দরে অভিবাসন চত্বরে ঠিক কী হয়েছিল তা জানতে উত্তর ২৪ পরগনার জেলাশাসকের কাছে রিপোর্ট তলব করল মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিকের দফতর।

বিমানবন্দরে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্ত্রী সোনা নিয়ে ধরা পড়েছেন, গত কয়েক দিন ধরে এমন জল্পনা হাওয়ায় ঘুরছিল, কিন্তু রবিবার থেকে পরিস্থিতি উত্তপ্ত হতে শুরু করে। ওই দিন রাজ্য সদর দফতের সাংবাদিক সম্মেলনে ওই ঘটনায় রাজ্য পুলিসের বিরুদ্ধে কেন্দ্রীয় সংস্থার কাজে হস্তক্ষেপের অভিযোগ তোলে বিজেপি।

আরও পড়ুন গরম থেকে সাময়িক রেহাই হয়তো মঙ্গলবার, এপ্রিলের শুরুতে প্রবল দুর্যোগের আশঙ্কা!

পালটা সাংবাদিক সম্মেলনে বিজেপিকে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দেন সাংসদ অভিষেকবাবু। তাঁর দাবি, সত্যিই তাঁর স্ত্রীর কাছে নিষিদ্ধ কিছু ধরা পড়লে সেই ঘটনার সিসিটিভি ফুটেজ প্রকাশ করুক বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ। অভিষেকের অভিযোগ, নিষিদ্ধ কিছু থাকলে কেন তখনই তাঁর স্ত্রীকে আটক করে জিনিসগুলি বাজেয়াপ্ত করল না শুল্ক বিভাগ। স্ত্রীয়ের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ প্রমাণিত হলে তিনি রাজনীতি ছেড়ে দেবেন বলেও জানান অভিষেকবাবু।

সোমবার ঘটনাটি নিয়ে ফের সাংবাদিক বৈঠক করে বিজেপি। বিজেপি সাংসদ স্বপন দাশগুপ্ত অভিযোগ করেন, রাজ্যে সাংবিধানিক সংকট তৈরি করতে চাইছে বর্তমান সরকার। ব্যাপারটা নিয়ে নির্বাচন কমিশনের কাছে দ্বারস্থ হয়েছিল দু’পক্ষই। সেই কারণেই এ বার নড়েচড়ে বসল কমিশন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here