১০০ টাকা ধার শোধার নামে ৫০০-এর নোট দেখিয়ে খুন

0

টাকার ‘ক্রাইসিস’-এর জের। ১০০ টাকার জন্য বন্ধুর হাতে খুন হয়ে গেল বন্ধু।

সোমবার জলপাইগুড়ির তিস্তা নদী সংলগ্ন প্রেমগঞ্জের চর থেকে নুর ইসলাম নামে এক ব্যাক্তির মৃতদেহ উদ্ধার হয়। চৌরঙ্গি এলাকার বাসিন্দা নুর প্রেমগঞ্জের একটি মহিষবাথানে কাজ করতেন। ওই বাথানেই কাজ করতেন বন্ধু গোবিন হেমব্রম। মৃতদেহ উদ্ধারের পর থেকে কোনো খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না গোবিনের। তদন্তে নেমে জলপাইগুড়ি কোতোয়ালি থানার পুলিশের সন্দেহ গিয়ে পড়ে নিখোঁজ গোবিনের ওপর। এর পর সন্ধে নাগাদ ক্রান্তি ফাঁড়ির সাহায্য নিয়ে চ্যাংমারি এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে কোতোয়ালির পুলিশ। সিধেসাধা চেহারার গোবিনকে জেরা করে খুনের কারণ জানতে পেরে চমকে যান পুলিশ আধিকারিকেরা। ধার নেওয়া ১০০ টাকা ফেরত দিতে না চাওয়ায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে বন্ধুকে খুন করেছে বলে পুলিশের কাছে স্বীকার করে গোবিন। সে জানিয়েছে, প্রায় মাস খানেক আগে ধার নেওয়া ১০০ টাকা ফেরত দিচ্ছিল না নুর। এদিকে ব্যাঙ্ক থেকে টাকা তুলতে না পারায় আর্থিক অনটনের মধ্যে পড়েছিল গোবিন। রবিবার রাতে বাথান পাহারা দেওয়ার সময় আবার নুরের কাছে সেই টাকা ফেরত চায় গোবিন। সেই সময় একটি বাতিল ৫০০ টাকার নোট দেখিয়ে খুচরো না থাকার কথা তাকে বলে নুর। তাতেই ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে গোবিন। প্রথমে বচসা ,তারপর মারপিট। সেই সময় পাশে পড়ে থাকা একটি কুড়ুল দিয়ে নুরের মাথা ও গলায় আঘাত করে অভিযুক্ত। এরপর সে পালিয়ে যায়।

থানায় বসে নুর জানিয়েছে, ব্যাঙ্ক থেকে টাকা তুলতে না পারায় তার টাকার টানাটানি চলছিল। কিন্তু টাকা ফেরত না দিয়ে নুর তাকে বাতিল নোট দেখিয়ে উত্যক্ত করত। মঙ্গলবার গোবিনকে আদালতে তোলা হবে।

 

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন