বাংলায় কি রাষ্ট্রপতি শাসন জারি হতে পারে? বেসরকারি টিভি চ্যানেলে রাজ্যপালের ইঙ্গিতপূর্ণ মন্তব্য

0
Keshari and amit
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে রাজ্যপাল।

ওয়েবডেস্ক: লোকসভা ভোট শেষ হতেই পশ্চিমবঙ্গে রাষ্ট্রপতি শাসনের জল্পনা যত বাড়ছে, তার সঙ্গেই পাল্লা দিয়ে চড়ছে উত্তেজনার পারদ।

সন্দেশখালি সংঘর্ষ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে সোমবারই বৈঠক করেছেন পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠী। এই বৈঠকের পর সাংবাদিকদের সামনে তিনি বাংলায় রাষ্ট্রপতি শাসন নিয়ে তেমন কোনো মন্তব্য না করলেও একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এই বিষয়ে তাঁর ইঙ্গিতপূর্ণ মন্তব্যের পরই চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।

জানা গিয়েছে, প্রধানমন্ত্রী-রাজ্যপাল বৈঠক ছিল পূর্বনির্ধারিত সূচি অনুযায়ী। কিন্তু কিন্তু সন্দেশখালির হিংসার পরিপ্রেক্ষিতে এই বৈঠক আরও তাৎপর্যের হয়ে ওঠে। বৈঠকে ঢোকার আগে রাজ্যপাল নিজে বলেন, “প্রধানমন্ত্রী জানতে চাইলে নিশ্চয়ই জানাব।” আবার বৈঠক সেরে বেরিয়ে কেশরীনাথ বলেছেন, ‘‘মমতা যা বলছেন, বলুন। আমি যা বলার প্রধানমন্ত্রীকে বলেছি।’’

আরও পড়ুন: ২৩ মে-র পর রাষ্ট্রপতি শাসন জারি হতে পারে বাংলায়?

অন্য দিকে বৈঠক থেকে বেরিয়ে আসার সময় তিনি বলেন, “রাজ্যে ৩৫৬ ধারা জারি করার বিষয়টি আমার এক্তিয়ারের মধ্যে পড়ে না। প্রধানমন্ত্রী বা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে এ বিষয়ে কোনও আলোচনাও হয়নি”।

তবে ওই বেসরকারি টিভি চ্যানেলে তিনি তাৎপর্যপূর্ণ ভাবে মন্তব্য করেন- “হতেও পারে (রাষ্ট্রপতি শাসন)। যখন দাবি উঠবে, তখন কেন্দ্র নিশ্চই ভেবে দেখবে”।

প্রসঙ্গত, ওই দিনই বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেছেন, “কেউ যদি ভাবেন আমাদের সরকার ফেলে দিয়ে সরকার দখল করবেন, তা হলে ভুল ভাবছেন। মনে রাখবেন, আহত বাঘ বেশি ভয়ঙ্কর”।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here