সমাজের প্রান্তিক শ্রেণির পড়ুয়াদের মধ্যাহ্নভোজ খাইয়ে ছেলের জন্মদিন পালন আধিকারিকের

0
indas bdo
সরকারি আধিকারিকের ছেলের জন্মদিনের অনুষ্ঠান। নিজস্ব চিত্র।

ইন্দ্রাণী সেন

বাঁকুড়া: পায়েস, প্রদীপ, কেক, মোমবাতি, বেলুন, পঞ্চব্যাঞ্জন, মানুষের উপহার – পর পর সাজালে জন্মদিনের ছবিটাই মাথায় আসে। এ সব গতানুগতিক ধারা থেকে বেরিয়ে এসে একদম অন্য রকম ভাবে ছেলে শীলভদ্র চক্রবর্তীর আঠারোতম জন্মদিনে পঞ্চাশ জন প্রান্তিক পড়ুযার জন্য মধ্যাহ্নভোজের আয়োজন করলেন প্রচারবিমুখ এক মহিলা আধিকারিক।

আরও পড়ুন ভারতের এই রাজ্যে এ বার থেকে সরকারি বাস চালাবেন আদিবাসী মহিলারা

বাঁকুড়ার ইন্দাসের ছাত্রছাত্রীদের সংগঠন ‘প্রয়াস’। এই ‘প্রয়াস’-এর পাঠশালার জনা পঞ্চাশেক পড়ুয়া এ দিন কবজি ভুবিয়ে মাংস ভাত পোস্ত ডাল চাটনি আর মিষ্টি দিয়ে মধ্যাহ্নভোজ সারল। ‘প্রয়াস’-এর সদস্য রিক্তা পারমিতা সৌমেন সুরজ সপ্তর্ষিদের মুখটা আজ উজ্জ্বল দেখাছিল।

এই আয়োজনের কারণ জানতে চাইলে রিক্তা বলেন, “আমাদের বিডিও ম্যাডামের ছেলের জন্মদিন ওঁর সৌজন্যেই আজকের এই আয়োজন। আমাদের ইচ্ছা থাকলেও অর্থনৈতিক অবস্থার জন্য এই ধরনের আয়োজন কখনও করা হয়ে ওঠেনি। এই প্রথম এই ধরনের উদ্যোগ গ্রহণ করা হল বিডিও ম্যাডামের জন্য।”

‘প্রয়াসে’-এর পাঠশালার রাজু, মনীষা, মেঘা, ফুলমণিদের কথায়, “ঘরেতে মা মাংস রান্না করে না। আজ সবার সাথে ফিস্টিতে খেয়ে খুব ভালো লাগছে।” পাশ থেকে মনীষা বলে উঠল, এটা ফিস্টি নয়, জন্মদিন। বিডিও ম্যাডামের ছেলের জন্মদিনের ভোজ।

এই বিষয়ে ইন্দাসের বিডিও মানসী ভদ্র চক্রবর্তী বলেন, “‘প্রয়াস’ খুব ভালো কাজ করছে। মহকুমাশাসকের কাছ থেকে পুরস্কারও পেয়েছে। বহু বার ‘প্রয়াস’-এর আড়ম্বরহীন আন্তরিকতাপূর্ণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকেছি। এটা এমন কিছু না। ‘প্রয়াস’-এর বাচ্চাদের ভালোবেসে এই ক্ষুদ্র উপহার।”

সংশ্লিষ্ট সংগঠনের প্রত্যেকে বিডিও ম্যাডামের এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন। পাশাপাশি শীলভদ্রকেও জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here